বাংলা নিউজ > ময়দান > ডোপিংয়ের জেরে ২ বছর নির্বাসিত ইতিহাস তৈরি করা ভারতীয় বাস্কেটবলার
সতনাম সিং ভামারা। (ফাইল ছবি, সৌজন্য @hellosatnam)
সতনাম সিং ভামারা। (ফাইল ছবি, সৌজন্য @hellosatnam)

ডোপিংয়ের জেরে ২ বছর নির্বাসিত ইতিহাস তৈরি করা ভারতীয় বাস্কেটবলার

  • প্রথম ভারতীয় হিসেবে এনবিএয়ের ড্রাফটে নির্বাচিত হয়ে তৈরি করেছিলেন ইতিহাস।

শুভব্রত মুখার্জি

একটা সময় স্বপ্ন দেখতে শিখিয়েছিলেন। প্রথম ভারতীয় হিসেবে এনবিএয়ের ড্রাফটে নির্বাচিত হয়ে তৈরি করেছিলেন ইতিহাস। কিন্তু এবার ডোপিংয়ের কালো দাগ লেগে গেল তাঁর কেরিয়ারে। 

ডোপিংয়ের অভিযোগে দু'বছর নির্বাসিত করা হল বাস্কেটবল খেলোয়াড় সতনাম সিং ভামারাকে। বৃহস্পতিবার দ্য ন্যাশনাল অ্যান্টি ডোপিং এজেন্সি (নাডা) জানিয়েছে, দু'বছরের জন্য নির্বাসন করা হয়েছে সতনামকে। নাডা জানিয়েছে, সতনাম হাইজেনামাইন নামক নিষিদ্ধ ওষুধ সেবন করেন। প্রসঙ্গত ২০১৫ সালে ভারতের প্রথম বাস্কেটবল খেলোায়াড় হিসেবে এনবিএয়ের ড্রাফটে নির্বাচিত হয়েছিলেন।

উল্লেখ্য এই ভারতীয় বাস্কেটবলারের ক্ষেত্রে অনেক দিন ধরেই মামলা চলছিল। কিন্তু নানা কারণের জন্য তার মামলার শুনানি পিছিয়ে যায়। কোভিডের ফলে পিছিয়ে যায় শুনানি। অবশেষে এক বছর ধরে মামলা চলার পর নিজেদের সিদ্ধান্ত জানাল নাডা। নাড়ার বক্তব্য, সতনাম যে ওষুধ খেয়েছেন, সেটির গঠনগত বিষয়ে খোঁজখবর না নেওয়ার ফলেই এই বিপত্তি।

গত বছরের ১৯ নভেম্বর থেকে স্বেচ্ছায় নির্বাসন নিয়েছিলেন ভারতীয় বাস্কেটবলার। নাডা জানিয়েছে, সতনামের নির্বাসন গতবছর থেকেই কার্যকরী হবে। ফলে ২০২১ সালের ১৮ নভেম্বর পর্যন্ত তিনি নির্বাসিত থাকবেন। ফলে বাস্কেটবল কোর্টে দেখতে পাওয়া যাবে না এই ভারতীয় বাস্কেটবলারকে।

বন্ধ করুন