নোভাক জকোভিচ, রাফায়েল নাদাল ও রজার ফেডেরার। ছবি- গেটি ইমেজেস।
নোভাক জকোভিচ, রাফায়েল নাদাল ও রজার ফেডেরার। ছবি- গেটি ইমেজেস।

Covid-19: পিছনের সারির খেলোয়াড়দের পাশে দাঁড়ানোর উদ্যোগ টেনিসের বিগ-থ্রি'র

  • আগামী ৭ জুন পর্যন্ত পেশাদার টেনিসের সমস্ত টুর্নামেন্ট স্থগিত হয়ে গিয়েছে। এটিপি চ্যালেঞ্জার ট্যুর ও আইটিএফ ওয়ার্ল্ড টেনিস ট্যুরও বন্ধ।

করোনা পীড়িত সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়াতে আগেই এগিয়ে এসেছিলেন রজার ফেডেরার, রাফায়েল নাদাল ও নোভাক জকোভিচ। এবার মহামারীর জেরে আর্থিক দিক দিয়ে বিপর্যস্ত পেশাদার সার্কিটের সহ-খেলোয়াড়দের সাহায্য করার ভাবনা চিন্তা শুরু করে দিলেন টেনিসের বিগ-থ্রি।

তিনবারের গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী সুইস তারকা স্তান ওয়ারিঙ্কার সঙ্গে ইনস্টাগ্রাম লাইভে মুখোমুখি হয়েছিলেন নোভাক জকোভিচ। সেখানেই জোকার জানান, ব়্যাঙ্কিংয়ের পিছনের দিকে থাকা খেলোয়াড়দের আর্থিকভাবে সাহায্য করার বিষয়ে ফেডেরার ও নাদালের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে তাঁর।

জকোভিচ বলেন, 'ফেডেরার ও নাদালের সঙ্গে আমার দীর্ঘ আলোচনা হয়েছে। আমরা কীভাবে ব়্যাঙ্কিংয়ের পিছনের দিকে থাকা খেলোয়াড়দের সাহায্য করতে পারি, তাদের জন্য কী ব্যবস্থা নেওয়া সম্ভব আমাদের পক্ষে, এই বিষয়ে আমরা কথাবার্তা বলেছি।'

যদিও এটা জানা যায়নি যে, টেনিসের বিগ-থ্রি এই নিয়ে ঠিক কী ভাবছেন। সংবাদ সংস্থা এপি-র তথ্য অনুযায়ী এটিপি ও গ্র্যান্ড স্ল্যাম টুর্নামেন্টগুলির সহযোগীতায় ফে়ডেরার, নাদাল ও জকোভিচ ৩ থেকে ৪.৫ মিলিয়ন মার্কিন ডলার সংগ্রহ করতে চাইছেন। অর্থাৎ, ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ২৩ থেকে ৩৫ কোটি টাকার একটি তহবিল গড়তে চাইছেন তিন তারকা, যে অর্থ বিশ্বব়্যাঙ্কিংয়ের ২০০ থেকে ৭০০ নম্বরে থাকা খেলোয়াড়দের মধ্যে বণ্টন করা হবে।

আগামী ৭ জুন পর্যন্ত পেশাদার টেনিসের সমস্ত টুর্নামেন্ট স্থগিত হয়ে গিয়েছে। এটিপি চ্যালেঞ্জার ট্যুর ও আইটিএফ ওয়ার্ল্ড টেনিস ট্যুরও বন্ধ। উইম্বলডন, অলিম্পিকের মতো ইভেন্টগুলিও বাতিল হয়েছে এবছরের মতো। স্বাভাবিকভাবেই ব়্যাঙ্কিয়ের পিছনের দিকে থাকা খেলোয়াড়দের টেনিস খেলে আয় করার রাস্তা বন্ধ। সমস্যাটা তাই তাদের সামনেই বড় হয়ে দেখা দিয়েছে।

বন্ধ করুন