বাংলা নিউজ > ময়দান > IND vs WI: ভালো ব্যাটিং-বোলিং করিনি, ভুল থেকে শিক্ষা নিইনি- ক্ষোভ উগরালেন পুরান
নিকোলাস পুরান।

IND vs WI: ভালো ব্যাটিং-বোলিং করিনি, ভুল থেকে শিক্ষা নিইনি- ক্ষোভ উগরালেন পুরান

  • ভারত ৭ উইকেট হারিয়ে ১৮৮ রান করে। শ্রেয়স আইয়ার ৪০ বলে ৬৪ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন। দীপক হুডা ৩৮ এবং হার্দিক ২৮ রান করেন। রান তাড়া করতে নেমে একাই লড়াই করে ৫৬ রানের দুরন্ত ইনিংস খেলেন হেতমায়ের। তবে অন্য প্রান্তে উইকেট পড়তে থাকে। মাত্র ১০০ রানেই গুটিয়ে যায় উইন্ডিজের ইনিংস।

ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে ওয়েস্ট ইন্ডিজের পারফরম্যান্স ছিল সম্পূর্ণ হতাশাজনক, যা ফাইনাল ম্যাচেও দেখা গিয়েছে। পঞ্চম টি-টোয়েন্টিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৮৮ রানে হেরেছে। এবং সিরিজ ১-৪ ব্যবধানে হেরে যায় তারা। ফাইনাল ম্যাচে হারের পর অধিনায়ক নিকোলাস পুরান বেশ হতাশ হয়ে পড়েছেন এবং তাঁর দলের খেলোয়াড়দের খারাপ পারফরম্যান্সের জন্য রীতিমতো ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন।

ভারতের বিপক্ষে শোচনীয় পরাজয়ের পর পুরান বলেন, ‘আমরা ভালো খেলতে পারিনি। আমরা আমাদের ভুল থেকে শিক্ষা নিইনি। আমরা কেবল চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতেই অক্ষম ছিলাম না, আমরা যথেষ্ট পার্টনারশিপও গড়ে তুলতে পারিনি। কঠিন দলের বিপক্ষে খেলতে হলে ভালো পারফরম্যান্স করতে হবে। ব্যাটিং হোক বা বোলিং, আমাদের অনেক কিছু করার আছে। আমি আশা করি, দল হিসেবে আমরা এই পরাজয় থেকে শিক্ষা নেব। আমরা বিশ্বকাপের দিকে যাচ্ছি এবং আশা করছি আমরা এটা ঠিক করব।’

আরও পড়ুন: আমাকে অলরাউন্ডার বলতেই পারেন- দাবি উইন্ডিজকে হারানোর অন্যতম কারিগরের

ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে এই ম্যাচে, জেসন হোল্ডার আর শামরাহ ব্রুকস ওপেন করেছিলেন। জেন, হোল্ডার সাধারণত নীচের অর্ডারে ব্যাট করেন। এই সিদ্ধান্তের বিষয়ে পুরান বলেন, ‘স্পষ্টতই কিং এবং মেয়ার্স আজ খেলেনি, তাই ওপেন করার জন্য আমাদের কাউকে দরকার ছিল। শুধু ওদের ব্যাট করার সুযোগ দেওয়ার কথা ভেবেছিলেন। আমরা সবাই জানি যে, ও লোয়ার অর্ডারে কী করতে পারে। সেটাই আমাদের ভবিষ্যতে ভাবতে হবে (দুই স্পিনার নিয়ে খেলা)। সামনের দিকে তাকিয়ে ভারত দেখিয়েছে এই সিরিজে ওরা আমাদের চেয়ে ভালো।’

আরও পড়ুন: ভবিষ্যতে পাকাপাকি ভাবে ক্যাপ্টেন হতে চাই-অন্যদের চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন হার্দিক

প্রসঙ্গত এই ম্যাচে ভারত রোহিত শর্মাকে বিশ্রাম দিয়েছিল এবং হার্দিক পান্ডিয়ার হাতে অধিনায়কত্ব তুলে দেওয়া হয়েছিল। ইনিংস ওপেন করেন ইশান কিষাণ ও শ্রেয়স আইয়ার। আইয়ার ৪০ বলে ৬৪ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন। দীপক হুডা ৩৮ ও হার্দিক ২৮ রান করেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে সর্বোচ্চ তিনটি উইকেট নেন ওডেন স্মিথ। ভারত ৭ উইকেট হারিয়ে ১৮৮ রান করে।

স্কোর তাড়া করতে নেমে তৃতীয় বলেই প্রথম উইকেট হারায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ৫০ রানে তারা চার উইকেট হারিয়ে বসে থাকে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রথম তিনটি উইকেটই নেন অক্ষর। শিমরন হেতমায়ের একাই লড়াই করে ৫৬ রানের দুরন্ত ইনিংস খেলেন। তবে অন্য প্রান্ত থেকে উইকেট পড়তে থাকে। মাত্র ১০০ রানেই গুটিয়ে যায় উইন্ডিজের ইনিংস। ৮৮ রানে জয় পায় টিম ইন্ডিয়া। ভারতের হয়ে রবি বিষ্ণোই চার উইকেট নেন এবং কুলদীপ যাদবও নেন তিন উইকেট।

বন্ধ করুন