১২ মাসের মধ্যে ৪ মাস বৃহস্পতি বক্রদশা প্রাপ্ত হন।
১২ মাসের মধ্যে ৪ মাস বৃহস্পতি বক্রদশা প্রাপ্ত হন।

এবার বক্র অবস্থান বৃহস্পতিরও, জানুন কু-প্রভাব ও তা এড়ানোর উপায়

  • এ বছর মে মাসের ১৪ তারিখ রাত ৯.০৫ মিনিটে বৃহস্পতির বক্রদশা শুরু হয়েছে। ১৩ সেপ্টেম্বর সকাল ৬.১০ মিনিট পর্যন্ত বৃহস্পতি বক্রী থাকবেন।

নবগ্রহের মধ্যে বৃহস্পতিকে শুভ গ্রহ মনে করা হয়। বৃহস্পতিকে শুভ, সদ্গুণ, সদাচার, সম্মান এবং প্রতিষ্ঠা প্রদানকারী গ্রহ বলা হয়। বর্তমানে বৃহস্পতি শনির সঙ্গে মকর রাশিতে বিরাজমান। এ বছর মে মাসের ১৪ তারিখ রাত ৯.০৫ মিনিটে বৃহস্পতির বক্রদশা শুরু হয়েছে। ১৩ সেপ্টেম্বর সকাল ৬.১০ মিনিট পর্যন্ত বৃহস্পতি বক্রী থাকবেন।

 

বৃহস্পতি সম্পর্কে কিছু কথা

* নবগ্রহের মধ্যে বৃহস্পতি সবচেয়ে বড় এবং প্রভাবশালী গ্রহ।

* বৃহস্পতি শুভ কর্মের সঙ্গে যুক্ত। সদাচার, সদ্গুণ, সত্যবাদিতা, বিবেক, দার্শনিকতা প্রদান করে থাকেন।

* কুষ্ঠিতে দ্বিতীয়, পঞ্চম, নবম, দশম এবং একাদশ স্থানের কারক বৃহস্পতি।

* বৃহস্পতি পুনর্বসু, বিশাখা এবং পূর্বভাদ্রপদ নক্ষত্রের প্রভু।

* ১২ মাসের মধ্যে ৪ মাস বৃহস্পতি বক্রদশা প্রাপ্ত হন। একটি রাশিতে প্রায় এক বছর বৃহস্পতির অবস্থান। ১২ রাশির চক্র সম্পূর্ণ করতে প্রায় সাড়ে ১২ থেকে ১৩ বছর সময় নেন।

 

বৃহস্পতির বক্র অবস্থানের প্রভাব

* বৃহস্পতির বক্র দশায় মানুষের মধ্যে সদাচার, সদ্গুণ কমবে।

* নিজের লাভের জন্য অন্যকে কষ্ট দিতেও ব্যক্তি পিছ-পা হবেন না।

* শনির রাশি মকরে শনির সঙ্গে বক্রী হওয়ার কারণে রোগবৃদ্ধি হবে।

* বৃহস্পতির বক্রী হওয়ায় শ্লেষ্মাজাতীয় রোগের বৃদ্ধি হবে।

* ত্বক সংক্রান্ত রোগ ছড়ানোর আশঙ্কা রয়েছে।

* ব্যক্তির ব্যবহারে হঠাৎ পরিবর্তন দেখা দেবে।

* আর্থিক পরিস্থিতি ভালো থাকবে না। অর্থাভাব দেখা দেবে।

* তবে এর শুভ প্রভাবও রয়েছে। মানুষের মধ্যে দূরদর্শিতা বাড়বে।

 

বক্রদশা প্রাপ্ত বৃহস্পতিকে কীভাবে শুভ রাখবেন

* স্বাত্বিক প্রবৃত্তি ত্যাগ করবেন না। মা-বাবার সেবা করুন।

* বিষ্ণুর পুজো করলে ভালো ফল পাবেন।

* প্রতিদিন অশ্বত্থ গাছে হলুদ মেশানো দুধ অর্পণ করুন।

* প্রতিদিন শিবলিঙ্গে চন্দনের প্রলেপ লাগান।

* গরিবদের হলুদ অন্ন দান করুন।

* হলুদ রঙের ফুলের চারা লাগান।

* বৃহস্পতিবার উপোস করুন।

* স্নানের জলে গঙ্গাজল এবং হলুদ সর্ষে বা হলুদ দিয়ে স্নান করুন।

* গোটা হলুদ, লেবু, নুন দান করুন।

 

বন্ধ করুন