বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > পরকীয়া সম্পর্কের জেরে স্বামী-স্ত্রীর বচসা, রক্তাক্ত পরিণাম শিশুর
পরকীয়া সম্পর্কের জেরে স্বামী-স্ত্রীর বচসা, রক্তাক্ত পরিণাম শিশুর। প্রতীকী ছবি
পরকীয়া সম্পর্কের জেরে স্বামী-স্ত্রীর বচসা, রক্তাক্ত পরিণাম শিশুর। প্রতীকী ছবি

পরকীয়া সম্পর্কের জেরে স্বামী-স্ত্রীর বচসা, রক্তাক্ত পরিণাম শিশুর

দুপক্ষের মধ্যে বচসা চলার পর শেষে স্বামী তাঁর বাড়ি ফিরে আসেন বলে খবর। স্থানীয়দের অভিযোগ, এরপরই ওই মহিলা নিজের সন্তানকে খুন করে পুকুরে ফেলে দেন। 

এক মর্মান্তিক ঘটনার জেরে আমডাঙার রাইপুরে প্রবল চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। জানা গিয়েছে, স্ত্রীর পরকীয়া সম্পর্ক নিয়ে বহু দিন ধরে স্বামী ক্ষোভে ফুঁসছিলেন। এদিকে, ঘর সংসার ছেড়ে ওই বধূ দূরে একটি বাড়ি ভাড়া নিয়ে বহুদিন ধরে থাকতে শুরু করেছিলেন বলে জানা যায়। এরপর সেই বাড়িতে গিয়ে নিজের স্ত্রী ও সন্তানদের ফেরত আনতে যান স্বামী। আর তাতেই বাঁধে গোলযোগ। দুই পক্ষের বচসার জেরে রক্তাক্ত পরিণতি হয় তাদের ছোট্ট সন্তানের।

আমডাঙার রাইপুর গ্রামের বাসিন্দাদের বক্তব্য, বহুদিন ধরে এক যুবকের সঙ্গে ওই মহিলার বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক ছিল। এরপর সন্তানকে নিয়ে রাইপুর গ্রামে আলাদা বাড়িতে গিয়ে আশ্রয় নেন ওই মহিলা। জানা গিয়েছে, রবিবার রাতে সেই বাড়িতে তাদের সঙ্গে দেখা করে, তাদের ফিরিয়ে আনতে যান মহিলার স্বামী। এরপরই শুরু হয় দুইপক্ষের বচসা। দুপক্ষের মধ্যে বচসা চলার পর শেষে স্বামী তাঁর বাড়ি ফিরে আসেন বলে খবর। স্থানীয়দের দাবি, এরপরই ওই মহিলা নিজের সন্তানকে খুন করে পুকুরে ফেলে দেন।

এদিকে, শিশুটির দেহ স্থানীয় পুকুর থেকে উদ্ধার করা হয়। দেহটি উদ্ধার করে আমডাঙা থানার পুলিশ। এরপরই ওই ঘটনায় শিশুটির বাবা মা কে আটক করেছে পুলিশ। গোটা ঘটনায় তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে খবর। স্থানীয়দের দাবি, শিশুটিকে যে সময় খুন করা হয়, তখন সেখানে ছিল স্ত্রীয়ের সঙ্গে সম্পর্কে লিপ্ত হিসাবে অভিযুক্ত যুবক। তবে পরে যুবক পালিয়ে যায় বলে খবর।

 

বন্ধ করুন