বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > মেখলিগঞ্জ কী জলপাইগুড়ি জেলায়?‌ দিলীপ ঘোষের ফেসবুক পোস্টে বিতর্ক চরমে
দিলীপ ঘোষ। নিজস্ব চিত্র

মেখলিগঞ্জ কী জলপাইগুড়ি জেলায়?‌ দিলীপ ঘোষের ফেসবুক পোস্টে বিতর্ক চরমে

  • এবার তার প্রমাণ দিলেন স্বয়ং বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি কোচবিহারের মেখলিগঞ্জকে জলপাইগুড়ির অন্তর্গত বলে উল্লেখ করেছেন। আর তা তিনি করেছেন ফেসবুক পোস্ট করে। যা নিয়ে এখন তৈরি হয়েছে বিতর্ক। মেখলিগঞ্জ কোথায়?‌ জানেনই না দিলীপ ঘোষ বলে কটাক্ষ করেছে তৃণমূল কংগ্রেস।

বিজেপি বাংলাকে চেনে না। শুধু ক্ষমতা দখল করতে চায়। এই অভিযোগ বরাবর করে এসেছে তৃণমূল কংগ্রেস। এবার তার প্রমাণ দিলেন স্বয়ং বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি কোচবিহারের মেখলিগঞ্জকে জলপাইগুড়ির অন্তর্গত বলে উল্লেখ করেছেন। আর তা তিনি করেছেন ফেসবুক পোস্ট করে। যা নিয়ে এখন তৈরি হয়েছে বিতর্ক। মেখলিগঞ্জ কোথায়?‌ জানেনই না দিলীপ ঘোষ বলে কটাক্ষ করেছে তৃণমূল কংগ্রেস।

ঠিক কী ঘটিয়েছেন মেদিনীপুরের সাংসদ?‌ মেখলিগঞ্জ হল কোচবিহার জেলার তিস্তাপাড়ের ছোট্ট একটি শহর। বুধবার এখানেই দলীয় সভায় যোগ দিতে আসেন বিজেপির সর্বভারতীয় সহ–সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এখানে আসার পথে একটি ছবি তোলেন তিনি এবং ফেসবুকে পোস্ট করেন। এই পর্যন্ত সব ঠিকই ছিল। বিতর্ক তৈরি হয় ফেসবুক ওয়ালে সেই ছবির সঙ্গে লেখেন, মেখলিগঞ্জ জলপাইগুড়ি জেলার অংশ। যা ঘিরে শুরু হয় তরজা।

ঠিক কী বলছে তৃণমূল কংগ্রেস?‌ এই বিষয়ে কোচবিহারের তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি পার্থপ্রতিম রায় একটি পোস্টে কটাক্ষ করে বলেন, ‘‌দিলীপ ঘোষ জানেনই না মেখলিগঞ্জ কোচবিহার জেলার অন্তর্গত। বিজেপির সাংসদ জানেন না মেখলিগঞ্জ কোন জেলায়। অথচ উত্তরবঙ্গ ভাগের কথা বলে থাকেন।’‌ এই নিয়ে বিতর্ক শুরু হতেই দেখা যায়, দিলীপ ঘোষের আর একটি পোস্ট। যেখানে মেখলিগঞ্জকে জলপাইগুড়ি সাংগঠনিক জেলার অন্তর্গত বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

বিজেপি কী সাফাই দিয়েছে?‌ এই বিষযে কোচবিহার উত্তরের বিজেপি জেলা সভাপতি সুকুমার রায় বলেন, ‘‌আমাদের জলপাইগুড়ি সাংগঠনিক জেলার মধ্যে পড়ে। সেই হিসেবেই উনি লিখেছেন। আমরা সবাই জানি অযথা বিতর্ক তৈরি করছে তৃণমূল কংগ্রেস।’‌ পাল্টা পার্থপ্রতিম রায় বলেন, ‘‌ভুল করেছেন বলেই তো সরিয়েছেন। এটা একটা মারাত্মক ভুল। এটা দিলীপবাবুর অজ্ঞতা।’‌

বন্ধ করুন