বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > বাবা - মায়ের বিরুদ্ধে ৪ হাজার টাকায় শিশুকন্যাকে বিক্রির অভিযোগ মেদিনীপুরে
প্রতীকি ছবি
প্রতীকি ছবি

বাবা - মায়ের বিরুদ্ধে ৪ হাজার টাকায় শিশুকন্যাকে বিক্রির অভিযোগ মেদিনীপুরে

  • উদ্ধার করে শিশুটিকে মেদিনীপুর শহরের বিদ্যাসাগর বালিকা ভবনে রেখেছেন চাইল্ড লাইনের আধিকারিকরা।

অভাবের তাড়নায় ৮ মাসের শিশুকন্যাকে ৪ হাজার টাকায় বিক্রির অভিযোগ মা-বাবার বিরুদ্ধে। ঘটনা মেদিনীপুর শহরের হরিজন পল্লি এলাকার। শিশুকন্যাটিকে উদ্ধার করে চাইল্ড লাইনের হাতে তুলে দেন তাঁর কাকা। ঘটনায় মা ও বাবাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তাঁদের দাবি, অনটনে শিশুকন্যাকে বিক্রি করেছেন তাঁরা। 

পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, দম্পতির মোট ৪টি সন্তান। তার মধ্যে ৩টি সন্তান আত্মীয়দের কাছে বড় হচ্ছে। চতুর্থ সন্তানকে দিন কয়েক আগে এক ব্যক্তির কাছে বিক্রি করে দেন তাঁরা। ৪০০০ টাকার বিনিময়ে সন্তানকে ওই ব্যক্তির হাতে তুলে দেন দম্পতি। খবর পেয়ে টাকা ফিরিয়ে দিয়ে শিশুটিকে নিয়ে আসেন তাঁর কাকা। এর পর চাইল্ড লাইনে শিশুটিকে জমা দেন তিনি। 

উদ্ধার করে শিশুটিকে মেদিনীপুর শহরের বিদ্যাসাগর বালিকা ভবনে রেখেছেন চাইল্ড লাইনের আধিকারিকরা। বিশেষজ্ঞদের মতে, রাজ্যে শিশুকন্যাদের ওপর বৈষম্যের কিছু চাঞ্চল্যকর তথ্য গত কয়েকদিনে প্রকাশ্যে এসেছে। সম্প্রতি শিশুকন্যাকে খুনের দায়ে দক্ষিণ ২৪ পরগনার বারুইপুরে গ্রেফতার হন মা। এবার শিশুকন্যাকে বিক্রির অভিযোগ এল মেদিনীপুর থেকে। 

সমাজ কল্যাণ দফতরের আধিকারিকরা বলছেন, শিশুকন্যাদের সুরক্ষায় রাজ্য ও কেন্দ্রীয় সরকার একাধিক প্রকল্প চালু করেছে। কিন্তু তার খবর প্রান্তিক মানুষদের কাছে পৌঁছয় না। যার ফলে শিশুকন্যাদের প্রতি বৈষম্যমূলক আচরণ করেন তাঁরা।

 

বন্ধ করুন