বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > শ্বশুরবাড়িতে মিলল বধূর ঝুলন্ত দেহ, খুনের অভিযোগ পরিবারের
হরিশ্চন্দ্রপুর থানা। ফাইল ছবি
হরিশ্চন্দ্রপুর থানা। ফাইল ছবি

শ্বশুরবাড়িতে মিলল বধূর ঝুলন্ত দেহ, খুনের অভিযোগ পরিবারের

  • নিহত বধূর পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, মাসতারাকে লাগাতার নির্যাতন চালাত শ্বশুরবাড়ির লোকেরা।

পরকীয়া সম্পর্কের প্রতিবাদ করায় স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে খুনের অভিযোগ উঠল স্বামীসহ শ্বশুরবাড়ির লোকেদর বিরুদ্ধে। শনিবার সকালে শোওয়ার ঘর থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় ওই গৃহবধূর দেহ উদ্ধার করে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে মালদার হরিশ্চন্দ্রপুর থানা এলাকার সোনাকুল গ্রামে। মৃত গৃহবধূর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে স্বামী রবিউল ইসলাম এবং শাশুড়ি আনোয়ারা বিবিকে আটক করেছে হরিশ্চন্দ্রপুর থানার পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃত গৃহবধূর নাম মাসতারা খাতুন (২৮)। তাঁর দুই নাবালক পুত্র রয়েছে। পাঁচ বছর আগে মাসতারা খাতুনের সঙ্গে সোনাপুর গ্রামের বাসিন্দা রবিউল ইসলামের বিয়ে হয়। অভিযোগ বিয়ের পর থেকেই পণের দাবিতে নানাভাবে অত্যাচার চালাচ্ছিল স্বামীসহ শ্বশুরবাড়ির লোকেরা। এদিন সকালে ওই গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যুর খবর পেয়ে বাড়ির লোকেরা ছুটে আসে। এরপরে পরিবারের তরফ থেকে মাসতারা খাতুনকে শ্বাসরোধ করে খুন করার পর পাখা থেকে ঝুলিয়ে দেওয়ার অভিযোগ দায়ের করেন তাঁরা। পুরো ঘটনাটির তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

নিহত বধূর পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, মাসতারাকে লাগাতার নির্যাতন চালাত শ্বশুরবাড়ির লোকেরা। এমনকী রবিউলের সঙ্গে গ্রামেরই এক মহিলার বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক রয়েছে। সেই সম্পর্কের প্রতিবাদ করাতেই খুন করা হয়েছে বধূকে।

দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট এলে বোঝা যাবে ঘটনাটি খুন না আত্মহত্যা।

 

বন্ধ করুন