বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ব্যাপক তুষারপাতে কনকনে শীত দার্জিলিংয়ে, বরফের চাদরে ঢাকল গোটা পাহাড়
তুষারপাত দেখা গেল দার্জিলিং, কালিম্পং এবং কার্শিয়াংয়ে।

ব্যাপক তুষারপাতে কনকনে শীত দার্জিলিংয়ে, বরফের চাদরে ঢাকল গোটা পাহাড়

  • এই তুষারপাতের ফলে জাঁকিয়ে শীত পড়েছে দার্জিলিং এলাকায়। ২০২২ সালের ৩৮ দিনের মধ্যে এই নিয়ে ষষ্ঠবার তুষারপাতে ঢাকল দার্জিলিং।

আজ, শুক্রবার দার্জিলিংয়ে ব্যাপক তুষারপাত হল। যা দেখে খুশি স্থানীয় মানুষজন থেকে পর্যটকরা। কারণ মরসুমের রেকর্ড তুষারপাত দেখা গেল দার্জিলিং, কালিম্পং এবং কার্শিয়াংয়ে। এটা চলতি বছরের ষষ্ঠ তুষারপাত। গোটা পাহাড় সাদা আস্তরণে ছেয়ে গিয়েছে। বরফে ঢেকেছে দার্জিলিংয়ের ঘুম–সহ কার্শিয়াংয়ের চটকপুর এবং বিস্তীর্ণ এলাকা।

এই তুষারপাতের ফলে জাঁকিয়ে শীত পড়েছে দার্জিলিং এলাকায়। ২০২২ সালের ৩৮ দিনের মধ্যে এই নিয়ে ষষ্ঠবার তুষারপাতে ঢাকল দার্জিলিং। যা কার্যত রেকর্ড তৈরি করেছে। টাইগার হিল, সান্দাকফু, ঘুম, কালিম্পং এবং কার্শিয়াংয়ে এমন তুষারপাত দেখা গেল প্রায় বছর ২০ পর। এই পরিমাণ তুষারপাত আগে কখনও দেখা যায়নি বলে মনে করছেন পাহাড়বাসী।

আজ, শুক্রবার সকাল থেকেই শুরু হয়েছে বৃষ্টি। কুয়াশায় ঢেকে গিয়েছে উত্তরের আকাশ। বেশ কিছু জায়গায় ঘন কুয়াশায় ঢেকে গিয়েছে। তার সঙ্গে বাড়তি সংযোজন তুষারপাত। সান্দাকফু, সিঙ্গালিলা রেঞ্জে অন্যান্য বছরের তুলনায় অনেক বেশি তুষারপাত হয়েছে বলে খবর মিলেছে। তুষারপাতের ফলে আশার আলো দেখছেন পর্যটনের সঙ্গে যুক্ত ব্যবসায়ীরা।

এই তুষারপাতের ফলে সেরপাং, থ্রুমশিং লা, সেঙ্গর এবং লাটোং লা এলাকায় যান চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। পর্যটকদের এই পরিস্থিতিতে রাস্তায় না বেরোনোর পরামর্শ দেওয়া হয়েছে প্রশাসনের পক্ষ থেকে। তবে তুষারপাতের খবরে খুশি পর্যটকরা। বহু পর্যটক ভিড় জমাচ্ছেন দার্জিলিংয়ে। পর্যটক আসায় স্থানীয় ব্যবসায়ীরাও খুশি।

বন্ধ করুন