বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > অভিষেকের বাড়ির কাছেই জিতেন্দ্র, তৃণমূলের সঙ্গেও কমছে দূরত্ব? কী বললেন BJP নেতা
 জিতেন্দ্র তিওয়ারি। 
 জিতেন্দ্র তিওয়ারি। 

অভিষেকের বাড়ির কাছেই জিতেন্দ্র, তৃণমূলের সঙ্গেও কমছে দূরত্ব? কী বললেন BJP নেতা

তাহলে কি বিজেপি ছাড়ছেন?

তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভবানীপুরের বাড়ির খুব কাছেই থাকছেন তিনি।কিন্তু তৃণমূলে যোগদানের জল্পনায় জল ঢেলে আসানসোলের প্রাক্তন মেয়র তথা বিজেপি নেতা জিতেন্দ্র তিওয়ারি জানিয়ে দিলেন, তিনি বিজেপিতেই থাকছেন।বিজেপিতে থেকেই সংগঠনকে মজবুত করবেন।দল তাঁকে যে দায়িত্ব দেবে, সেই দায়িত্ব পালন করবেন তিনি।|

বিজেপি নেতা তথা পাণ্ডবেশ্বরের প্রাক্তন বিধায়ক এখন পালা করে থাকছেন কলকাতা ও আসানসোলে। কলকাতায় তিনি যেখানে ফ্ল্যাটে থাকছেন, সেখান থেকে অভিষেকের বাড়ি শান্তিনিকেতন খুব একটা দূরে নয়। যে ফ্ল্যাটে তিনি উঠছেন, সেখানে জিতেন্দ্র তিওয়ারির মেয়ে পল্লবী থাকেন।জিতেন্দ্র তিওয়ারির মেয়ে কলকাতায় বসেই ডাক্তারি পড়ছেন। গত ১৩ জুন থেকে অভি্যেকের পাড়াতেই থাকছেন জিতেন্দ্র ও তার স্ত্রী চৈতালি। আগামী ২৩ বা ২৪ জুন আসানসোলে ফিরে যাবেন জিতেন্দ্র। এরইমধ্যে রাজনৈতিক মহলে জল্পনা শুরু হয়ে যায়, তাহলে কি আবার তৃণমূলে ফিরছেন জিতেন্দ্র? 

এই প্রশ্নের উত্তরে অবশ্য জিতেন্দ্র সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে জানিয়ে দিয়েছেন, তিনি কোনও দলে যাচ্ছেন না। বিজেপিতেই থাকব। সংগঠনকে মজবুত করার জন্য দল তাঁকে যে দায়িত্ব দেবে, সেই দায়িত্ব তিনি পালন করবেন। সামনেই পুরভোট। বিজেপি নেতৃত্ব যেমন বলবেন, সেইভাবে দলকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করবেন। কলকাতাতে তাঁর কর্মসূচির কথা জানতে চাওয়া হলে জিতেন্দ্র জানান, তিনি মেয়ে ও পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাচ্ছেন। দলেরও কাজ করছেন। কিছুদিন আগে বিশ্ব রক্তদান দিবসে রক্তও দিয়েছেন। মাঝে মধ্যে হেস্টিংসে বিজেপির সদর দফতরে যাচ্ছেন বলেও জানান তিনি।এদিন আসানসোলের প্রাক্তন মেয়র জানান, ‘‌আসানসোল শহরকে আরও উন্নত করতে গেলে পুরনিগমের পাশে দাঁড়াতে হবে রাজ্য সরকারকে। গত ৩ বছরে তা হচ্ছিল না। যাঁরা এখন পুরনিগম চালাচ্ছেন, তাঁরা আরও উন্নয়ন করুন। সাধারণ মানুষ উপকৃত হন। এটাই চাইব।’‌

গত বিধানসভা নির্বাচনে পশ্চিম বর্ধমান জেলায় বিজেপি ভালো ফল করতে পারেনি। ৯টি আসনের মধ্যে মাত্র ৩টি দখলে রাখতে পেরেছে তারা। পাশাপাশি আসানসোল লোকসভা কেন্দ্রের নধ্যে ৭টি আসনের মধ্যে মাত্র ২টি আসনে জয় পেয়েছে গেরুয়া শিবির। একইসঙ্গে বিজেপির মধ্যে আসানসোলের প্রাক্তন মেয়রের গ্রহণযোগ্যতা নিয়েই প্রশ্ন উঠেছিল। এলাকার সাংসদ বাবুল সুপ্রিয় প্রথমে জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে নেওয়ার ব্যাপারে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন। বিধানসভা ভোটের আগে একবার বিজেপিতে গিয়েও তৃণমূলে ফিরে এসেছিলেন জিতেন্দ্র। পরে আবার মত পাল্টান। আবার বিজেপিতে ফিরে গিয়েছিলেন তিনি।

বন্ধ করুন