বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ছোট্ট হেলিকপ্টারের মতো দেখতে, আকাশ থেকে নেমে এল মহিষাদলে, ব্যাপারটা কী?
হেলিকপ্টারের মতো দেখতে এই যানকে ঘিরে রহস্য। সংগৃহীত ছবি

ছোট্ট হেলিকপ্টারের মতো দেখতে, আকাশ থেকে নেমে এল মহিষাদলে, ব্যাপারটা কী?

  • সূত্রের খবর, মূলত জীবনদায়ী ওষুধ প্রত্যন্ত এলাকায় পৌঁছে দেওয়ার জন্য দেশের বিভিন্ন প্রান্তে এই ধরনের ড্রোনের ব্যবহার করছে একাধিক সংস্থা। এর জেরে দ্রুত ওষুধ পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হচ্ছে।

দেখতে অনেকটা হেলিকপ্টারের মতো। প্রচন্ড বৃষ্টির মধ্যেই উড়তে উড়তে অদ্ভূত দর্শন ওই জিনিসটি নেমে আসে আকাশ থেকে। পূর্ব মেদিনীপুরের মহিষাদল থানার অন্তর্গত হলদিয়া মেচেদা রাজ্য সড়কের আজড়া বাসস্ট্যান্ডের কাছেই ওই হেলিকপ্টারের মতো দেখতে ছোটখাটো যানটিকে ঘিরে ব্যাপক শোরগোল পড়ে যায়। জনবহুল জায়গায় এটি কীভাবে এল বুঝতে পারছিলেন না বাসিন্দারা। পরে বাসিন্দারা বুঝতে পারেন ওটা ড্রোন। এলাকায় পুলিশও চলে আসে।

এরপর ভালো করে ওই ড্রোনটি পরীক্ষা করে দেখা হয়। কিন্তু কোথা থেকে এল এই ড্রোন। কারা রয়েছে এই ড্রোনের পেছনে। ড্রোনটিতে কোনও ক্যামেরাও সংযুক্ত করা নেই। পরে বোঝা যায় আসলে এটি ওষুধ নিয়ে যাওয়ার জন্য ব্যবহার করা হচ্ছে। এক জায়গা থেকে অন্য় জায়গায় দ্রুত ওষুধ পৌঁছে দেওয়ার জন্য এই ড্রোনের ব্যবহার করা হচ্ছে।

সেই উদ্দেশ্যে এদিন ড্রোনটি ছাড়া হয়েছিল। দক্ষিণ ২৪ পরগণার বারুইপুর থেকে এই ড্রোনটিকে নিয়ন্ত্রণ করা হচ্ছিল। কিন্তু প্রচন্ড বৃষ্টিতে দৃশ্য়মান্যতা কমে যাওয়ার জন্য এটি মাটিতে জরুরী ভিত্তিতে নামিয়ে ফেলা হয়। আর সেটা দেখেই সন্দেহ হয় স্থানীয়দের। তবে পুলিশের কাছে এই ড্রোন সংক্রান্ত খবর আগাম ছিল না। সেকারণেই বিভ্রান্তি দেখা দেয়। তবে পুলিশ পরবর্তীতে বিষয়টি জানতে পেরে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়। এটি পটাশপুরে যাচ্ছিল।

তবে সূত্রের খবর, মূলত জীবনদায়ী ওষুধ প্রত্যন্ত এলাকায় পৌঁছে দেওয়ার জন্য দেশের বিভিন্ন প্রান্তে এই ধরনের ড্রোনের ব্যবহার করছে একাধিক সংস্থা। এর জেরে দ্রুত ওষুধ পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হচ্ছে।

বন্ধ করুন