বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > PAC-র চেয়ারম্যান পদ নিয়ে রাজনীতি করছে সরকার, রাজ্যপালের কাছে নালিশ শুভেন্দুর
বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী।
বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী।

PAC-র চেয়ারম্যান পদ নিয়ে রাজনীতি করছে সরকার, রাজ্যপালের কাছে নালিশ শুভেন্দুর

  • শুভেন্দুর দাবি, মুকুল রায়কে PAC-র চেয়ারম্যান করে বিধানসভা পরিচালনার ৩০২ ধারা ভঙ্গ করেছেন স্পিকার। কী ভাবে পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভার ভিতরে ও বাইরে গণতন্ত্র ভূলুণ্ঠিত হচ্ছে তা নিয়ে দেশের সমস্ত রাজ্যের স্পিকার ও দলনেতাদের কাছে চিঠি পাঠাবে বিজেপি।

PAC-র চেয়ারম্যান পদ নিয়ে রাজনীতি করছে তৃণমূল কংগ্রেস। রাজ্যে যে ২.২৮ কোটি মানুষের অধিকার ছিনিয়ে নিচ্ছে তারা। মঙ্গলবার বিকেলে রাজ্যপালের সঙ্গে সাক্ষাতের পর এমনই জানালেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী।

মুকুল রায়কে PAC-র চেয়ারম্যান করার প্রতিবাদে মঙ্গলবার বিধানসভার ৮টি স্থায়ী কমিটির চেয়ারম্যান পদ থেকে ইস্তফা দেন বিজেপি বিধায়করা। তার পর বিরোধী দলনেতার নেতৃত্বের রাজ্যপালের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে এব্যাপারে অভিযোগ জানান তাঁরা।

রাজ্যপালের সঙ্গে সাক্ষাৎ সেরে বেরিয়ে শুভেন্দু অধিকারী বলেন, ‘PAC-র চেয়ারম্যান পদ নিয়ে রাজনীতি করছে শাসকদল। রাজ্যে যে ২.২৮ কোটি মানুষ বিজেপিকে ভোট দিয়েছেন তাদের অধিকার ছিনিয়ে নিচ্ছে তারা।’

শুভেন্দুর দাবি, মুকুল রায়কে PAC-র চেয়ারম্যান করে বিধানসভা পরিচালনার ৩০২ ধারা ভঙ্গ করেছেন স্পিকার। কী ভাবে পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভার ভিতরে ও বাইরে গণতন্ত্র ভূলুণ্ঠিত হচ্ছে তা নিয়ে দেশের সমস্ত রাজ্যের স্পিকার ও দলনেতাদের কাছে চিঠি পাঠাবে বিজেপি।

শুভেন্দু অধিকারীর দাবি, মুকুল রায় নিজে প্রকাশ্যে তৃণমূল নেত্রীর উপস্থিতিতে দলবদল করেছেন। তার পর আলিপুরদুয়ারের বিজেপির জেলা সভাপতির হাতে তৃণমূলের পতাকা তুলে দিয়ে দলবদল করিয়েছেন। এমনকী টুইটারে ভেরিফায়েড অ্যাকাউন্টে তিনি নিজেকে তৃণমূল নেতা বলে পরিচয় দিয়েছেন। অথচ স্পিকার বলছেন তিনি বিজেপি। আগামী ১৬ জুলাই তাঁর বিরুদ্ধে দলত্যাগবিরোধী আইন প্রয়োগের দাবি নিয়ে শুনানি রয়েছে সেখানে সব তুলে ধরবো।

 

বন্ধ করুন