বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > বাড়িতে মদ পৌঁছে দেওয়ার জন্য পার্টনার খুঁজছে নবান্ন, আগামিকাল বৈঠক
অ্যালকোহলজাত পানীয়ের অনলাইন বিক্রি এবং হোম ডেলিভা তৎপর রাজ্য সরকার।
অ্যালকোহলজাত পানীয়ের অনলাইন বিক্রি এবং হোম ডেলিভা তৎপর রাজ্য সরকার।

বাড়িতে মদ পৌঁছে দেওয়ার জন্য পার্টনার খুঁজছে নবান্ন, আগামিকাল বৈঠক

  • আবেদনপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন আগামী ১৫ জুন।

অনলাইনে মদ বিক্রির পরিকাঠামো পোক্ত করতে এবার বেসরকারি সংস্থা ও স্টার্টআপ-এর সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধতে চলেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের অধীনে থাকা পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য পানীয় নিগম লিমিটেড (WBSBCL)।

অ্যালকোহলজাত পানীয়ের অনলাইন বিক্রি এবং হোম ডেলিভারি চালু করতে ইতিমধ্যেই আগ্রহ প্রকাশ করে বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে রাজ্য সরকারের এই সংস্থা এবং আগামী বুধবার এই বিষয়ে দরপত্র আহ্বানের আগে বৈঠকও ডাকা হয়েছে। 

এর আগেই লকডাউন পর্বে অনলাইনে মদের খুচরো বিক্রি ও হোম ডেলিভারি ব্যবস্থা চালু করার উদ্দেশে অফ শপের তালিকা তৈরি করেছে রাজ্যের একমাত্র লিকার হোলসেলার WBSBCL। করোনা সংক্রমণ রোধে দোকানে গ্রাহক সমাবেশে রাশ টানতে চালু হয়েছে সামাজিক নিরাপত্তা বিধিও। 

সোমবার প্রকাশিত এক নোটিশে WBSBCL-এর তরফে জানানো হয়েছে, ‘লিকার হোম ডেলিভারি পরিষেবা আরও কার্যকর করে তুলতে WBSBCL-এর তরফে স্টার্ট-আপ সহ আগ্রহী প্রতিষ্ঠিত অনলাইন অর্ডারিং সংস্থা, যাদের বৈদ্যুতিন অর্ডার, কেনাবেচা ও অ্যালকোহলজাত পণ্য লাইসেন্সপ্রাপ্ত দোকান থেকে কিনে হোম ডেলিভারি দেওয়ার অভিজ্ঞতা রয়েছে, তাদের থেকে আগ্রহ জানিয়ে আবেদনপত্র (EoI) আহ্বান করা হচ্ছে।’

নিগমের তরফে আরও জানানো হয়েছে যে, আবেদনপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন আগামী ১৫ জুন। লাইসেন্সপ্রাপ্ত মদের দোকান ও অনলাইন অর্ডারিং ও ডেলিভারি সংস্থাগুলিকে নিয়ে তৈরি করাল হচ্ছে বিশেষ প্যানেল। আগ্রহী সংস্থাদের যাবতীয় প্রশ্নের ব্যাখ্যা করতে বুধবার বৈঠক ডেকেছে EoI।

এর আগেই সুপ্রিম কোর্ট এক নির্দেশে রকাজ্য সরকারগুলিকে সরাসরি সংস্পর্শ এড়িয়ে অনলাইন অর্ডারের ভিত্তিতে মদের হোম ডেলিভারি ব্যবস্থা চালু করার পরামর্শ দিয়েছিল।

প্রসঙ্গত, ওডিশায় ইতিমধ্যেই লিকার হোম ডেলিভারি পরিষেবা চালু করেছে জোম্যাটো ও সুইগি-র মতো অনলাইন সংস্থা।

 

বন্ধ করুন