বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > ক্রমশ বাড়ছে করোনামুক্তির হার, আশঙ্কা কাটিয়ে আশার আলো দেখছে পশ্চিমবঙ্গ
বুধবার লকডাউনে শুনশান নিউ টাউনের নারকেলবাগান (AFP)
বুধবার লকডাউনে শুনশান নিউ টাউনের নারকেলবাগান (AFP)

ক্রমশ বাড়ছে করোনামুক্তির হার, আশঙ্কা কাটিয়ে আশার আলো দেখছে পশ্চিমবঙ্গ

  • দিন পশ্চিমবঙ্গে ২,২৯৪ জন নতুন করোনারোগী খোঁজ মিলেছে। মৃত্যু হয়েছে ৪১ জনের। আর সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২,০৯৪ জন।

করোনার সঙ্গে লড়াইয়ে পশ্চিমবঙ্গে আরও বাড়ল সুস্থতার হার। বুধবার করোনা অ্যাক্টিভ কেসের সংখ্যা বাড়লেও প্রায় ৬৮ শতাংশ ছুঁতে চলেছে সুস্থতার হার। এদিন পশ্চিমবঙ্গে ২,২৯৪ জন নতুন করোনারোগী খোঁজ মিলেছে। মৃত্যু হয়েছে ৪১ জনের। আর সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২,০৯৪ জন।

বুধবার পশ্চিমবঙ্গে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৬৫,২৫৮। সুস্থ হয়েছেন ৪৪,১১৬ জন। আর মোট মৃত ১,৪৯০ জন। করোনা আক্রান্ত অবস্থায় বুধবার পশ্চিমবঙ্গে মোট চিকিৎসাধীন ছিলেন ১৯,৬৫২ জন। এদিন পশ্চিমবঙ্গে রেকর্ড ১৭,১৪৪টি করোনার নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। 

স্বাস্থ্য দফতরের বুলেটিন বলছে, বুধবার কলকাতায় সংক্রমণ কিছুটা কমেছে। এদিন কলকাতায় মোট সংক্রমিত ৬৮৮ জন। শহরে মৃত্যু হয়েছে ১৭ জনের। সেরে উঠেছেন ৬৭৭ জন। 

উত্তর ২৪ পরগনায় নতুন সংক্রমণ ৫৫৪। সেরে উঠেছেন ৫৩০ জন। আর মৃত ৯। হাওড়া, হুগলি ও দক্ষিণ ২৪ পরগনাতেও সংক্রমণের ধারা অব্যহত। এর মধ্যে দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ৫ জন ও হাওড়ায় ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। 

বুধবার পূর্ব বর্ধমান জেলায় ৭৫ জন নতুন করোনারোগীর খোঁজ মিলেছে। বাঁকুড়ায় সংক্রমিত হয়েছেন ৫৯ জন। বীরভূমে ৩৩ জন। নদিয়ায় ৩১ ও মুর্শিদাবাদে ৩০ জন। 

উত্তরবঙ্গে বুধবার দার্জিলিং জেলায় ৬২ জন নতুন করোনারোগীর খোঁজ মিলেছে। ফলে এই জেলায় মোট করোনারোগীর সংখ্যা ২,০০০ ছাড়াল। উত্তর দিনাজপুরে ৫৩, দক্ষিণ দিনাজপুরে ৫৮, মালদায় ৩৬, জলপাইগুড়িতে ৩১, আলিপুরদুয়ার জেলায় ৩৮ জন নতুন করোনা রোগীর খোঁজ মিলেছে। 

বন্ধ করুন