বাংলা নিউজ > ভোটের লড়াই > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন ২০২১ > নন্দীগ্রাম আন্দোলনে নিখোঁজ ১০ জনের পরিবারকে ৪ লক্ষ টাকা করে অনুদান দিলেন মমতা
আর্থিক অনুদানের চেক তুলে দিচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নন্দীগ্রামে। সোমবার। ছবি সৌজন্য :‌ ফেস‌বুক
আর্থিক অনুদানের চেক তুলে দিচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নন্দীগ্রামে। সোমবার। ছবি সৌজন্য :‌ ফেস‌বুক

নন্দীগ্রাম আন্দোলনে নিখোঁজ ১০ জনের পরিবারকে ৪ লক্ষ টাকা করে অনুদান দিলেন মমতা

  • এদিন অরুণ দাস অধিকারী, বিশ্বজিৎ সিং, শুভঙ্কর মাইতি, প্রতিমা মাইতি, সুদেব মণ্ডল, সুমিত্রা মিদ্দা, বাপন মাইতি, রবি মণ্ডল, রাহুল করনের হাতে আর্থির অনুদানের চেক তুলে দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী চলে যান মূল সভাস্থলে।

নন্দীগ্রাম আন্দোলনে নিখোঁজ হয়েছিলেন অনেকে। এবার সেই মানুষগুলোর পরিবারের পাশে দাঁড়ালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার নন্দীগ্রামের তেখালি বাজার মাঠ সভাস্থলে পৌঁছেই সভা শুরুর আগে ক্ষতিগ্রস্ত ১০টি পরিবারের হাতে তুলে দিলেন আর্থিক সাহায্য। এদিন নন্দীগ্রামে রওনা হওয়ার আগেই মুখ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, ‘‌নন্দীগ্রামে আমি রোজই যাই। আমার মনে নন্দীগ্রাম রোজই থাকে।’‌

এদিন ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারদের হাতে আর্থিক সাহায্যে তুলে দেওয়ার আগে মমতা বলেন, ‘‌নন্দীগ্রাম আন্দোলন যখন হয়েছিল তখন প্রায় ১০ জন নিখোঁজ ছিলেন। ১৪ মার্চ অনেকে মারা গিয়েছিলেন। তা ছাড়া নভেম্বর মাসে সূর্যোদয়ের নাম করে ১০ জন মানুষ আজও ফিরে আসেনি। সেই মানুষগুলোর পরিবারের হাতে ৪ লক্ষ টাকা করে অনুদান দিচ্ছি। আজকের এই মঞ্চ সরকারি মঞ্চ। এই মঞ্চ থেকে ৪ লাখ টাকা করে সরকারি সাহায্যের চেক তুলে দেওয়া হচ্ছে সেই নিখোঁজদের পরিবারের হাতে।’‌

একইসঙ্গে এদিন মমতা ঘোষণা করেন যে শহিদ পরিবারকে মাসিক হাজার টাকা পেনশন দেবে সরকার।

এদিন অরুণ দাস অধিকারী, বিশ্বজিৎ সিং, শুভঙ্কর মাইতি, প্রতিমা মাইতি, সুদেব মণ্ডল, সুমিত্রা মিদ্দা, বাপন মাইতি, রবি মণ্ডল, রাহুল করনের হাতে আর্থির অনুদানের চেক তুলে দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী চলে যান মূল সভাস্থলে। উল্লেখ্য, অধুনা বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারীর ঘাঁটি বলে পরিচিত নন্দীগ্রামে বেশ কয়েক বছর পর এলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিনের সভা ঘিরে মানুষের উপস্থিতি চোখে পড়ার মতো। তৃণমূলের দাবি, লক্ষাধিক মানুষের জমায়েত হয়েছে এদিনের সভায়।

বন্ধ করুন