বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > তৃণমূলকে সমর্থন নয়, সাহায্য দরকার হলে ওরা বিজেপির কাছে যাক: অধীর
মঙ্গলবার এক সভায় অধীররঞ্জন চৌধুরী।  (Facebook)

তৃণমূলকে সমর্থন নয়, সাহায্য দরকার হলে ওরা বিজেপির কাছে যাক: অধীর

  • গত বুধবার কলকাতা প্রেস ক্লাবে সাংবাদিকদের প্রশ্নে উত্তরে অধীরবাবু বলেছিলেন, ‘রাজনীতি সম্ভাবনার খেলা। ভোটের পর বিজেপিকে রুখতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সংযুক্ত মোর্চাকে সমর্থন করতে পারেন।

ভোটের পর তৃণমূলকে সমর্থন নিয়ে নিজের অবস্থান থেকে সরলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীররঞ্জন চৌধুরী। শুক্রবার উত্তর দিনাজপুরের ইসলামপুরে ভোটপ্রচারে গিয়ে তৃণমূলকে সমর্থনের ব্যাপারে নিজের অবস্থান স্পষ্ট করলেন তিনি। সঙ্গে বললেন, এবার যে কংগ্রেস প্রার্থীরা জিতবেন তারা আর যাই হোক দলবদল করবেন না। 

শুক্রবার ইসলামপুরে কংগ্রেস প্রার্থী সাদিকুল ইসলামের সমর্থনে ভোটপ্রচার সেরে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন অধীর। তখনই এক সাংবাদিক তাঁকে প্রশ্ন করেন, ভোটের পর কি তৃণমূলকে সমর্থন করতে পারে সংযুক্ত মোর্চা। জবাবে অধীর জানান, ‘সংযুক্ত মোর্চা কেন তৃণমূলকে সমর্থন করতে যাবে? সংযুক্ত মোর্চা নিজে সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে সরকার বানাবে। তৃণমূলের সাহায্য দরকার হলে তাদের পুরনো বন্ধু বিজেপির কাছে যাবে। বিজেপির সঙ্গে ওদের সম্পর্ক বেশ ভাল’।

গত বুধবার কলকাতা প্রেস ক্লাবে সাংবাদিকদের প্রশ্নে উত্তরে অধীরবাবু বলেছিলেন, ‘রাজনীতি সম্ভাবনার খেলা। ভোটের পর বিজেপিকে রুখতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সংযুক্ত মোর্চাকে সমর্থন করতে পারেন। বা সংযুক্ত মোর্চাকে তিনি আমন্ত্রণ জানাতে পারেন।’ অধীরবাবুর এই মন্তব্যে জল্পনা ছড়ায় তবে কি বিজেপিকে রুখতে ভোটের পর তৃণমূলের হাত ধরতে পারে বাম কংগ্রেস?

বৃহস্পতিবার কলকাতা প্রেস ক্লাবেই আরেকটি সাংবাদিক বৈঠকে সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র এব্যাপারে বামেদের অবস্থান স্পষ্ট করেন। বলেন, কোনও অবস্থাতেই তৃণমূলকে সমর্থন করবে না বামেরা। কারণ, তৃণমূল স্পষ্ট করেছে তাদের লড়াই বিজেপির বিরুদ্ধে RSS-এর বিরুদ্ধে নয়। 

 

বন্ধ করুন