বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Kaun Banega Crorepati 14: একবার বক্সার মহম্মদ আলির হাতে ঘুষি খেয়েছিলেন অমিতাভ! কারণ জানলে চমকে উঠবেন
বক্সার মহম্মদ আলির সঙ্গে এই ছবি টুইটারে শেয়ার করেছেন বিগ বি

Kaun Banega Crorepati 14: একবার বক্সার মহম্মদ আলির হাতে ঘুষি খেয়েছিলেন অমিতাভ! কারণ জানলে চমকে উঠবেন

  • বক্সিংয়ে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন নিখাত জারিন গেম শো কৌন বনেগা ক্রোড়পতি ১৪-য়ে একজন সেলিব্রিটি অংশগ্রহণকারী হিসাবে হাজির হয়েছিলেন। নিখাত জারিনের সঙ্গে কথা বলার সময় বক্সার মহম্মদ আলির হাতে ঘুষির ঘটনা শেয়ার করেন বিগ বি।

বক্সিং আইকন মহম্মদ আলি একবার অভিনেতা অমিতাভ বচ্চনকে ঘুষি মেরেছিলেন! বলিউড অভিনেতা সম্প্রতি সেই ঘটনার কথা বর্ণনা করেছেন। বক্সিংয়ে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন নিখাত জারিন গেম শো কৌন বনেগা ক্রোড়পতি ১৪-য়ে একজন সেলিব্রিটি অংশগ্রহণকারী হিসাবে হাজির হয়েছিলেন। নিখাত জারিনের সঙ্গে কথা বলার সময় তিনি সেই এনকাউন্টারটির কথা স্মরণ করেছেন।

সাম্প্রতিক পর্বে নিখাত জানিয়েছিলেন, মহম্মদ আলি তাঁর প্রিয় ক্রীড়াবিদ। এরপরই অমিতাভ বচ্চন আলির সঙ্গে স্মৃতির পাতা থেকে তাঁর অভিজ্ঞতার কথা ভাগ করে নেন। অভিনেতা বলেন, ‘লস অ্যাঞ্জেলেস, বেভারলি হিলস-এ তাঁর (মহম্মদ আলি) বাড়িতে একবার তাঁর সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলাম। বিখ্যাত প্রযোজক-পরিচালক প্রকাশ মেহরা জি মহম্মদ আলি এবং আমাকে নিয়ে একটি ছবি করতে চেয়েছিলেন এবং তার জন্য আমরা তাঁর বাড়িতে দেখা করেছি। সেই ফিল্মটি কখনও তৈরি হয়নি, তবে আমি একটি ঘুষি খেয়েছিলাম। আমার কাছে তার একটি ছবি আছে, যেখানে তিনি আমার মুখে একটি ঘুষির জন্য পোজ দিয়েছিলেন। চমৎকার মানুষ!’ আরও পড়ুন: ‘জয়টা খুব স্পেশাল’, টিম ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্সের জয়ে উচ্ছ্বসিত শাহরুখ, আরিয়ান

২০১৬ সালে টুইটারের এক পোস্টে, অমিতাভ বক্সারের সঙ্গে একটি ছবি শেয়ার করেছিলেন। তিনি লিখেছেন, 'এলএ-তে বেভারলি হিলস ওঁর বাড়িতে, 'দ্যা গ্রেটেস্ট' মোহাম্মদ আলির সঙ্গে.. অনেক মজা করেছি.. আমার জন্য সম্মান এবং গর্বের!' আরও পড়ুন: ‘জুদাই’ ছবিতে অনিল-শ্রীদেবীর ছেলে রোমিকে মনে আছে! সে এখন কী করে জানেন?

বক্সারের মৃত্যুর পরে একটি প্রেস ইভেন্টে অমিতাভ মহম্মদ আলির সম্পর্কে কথা বলেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, ‘১৯৭৯ সালে আমি বক্সারের বেভারলি হিলসের বাড়িতে গিয়েছিলাম। খুবই সহজ সরল, ভূমিষ্ঠ ও সুখী মানুষ ছিলেন আলি। তাঁর কৃতিত্ব বিশ্ববাসীর কাছে পরিচিত। সেই সময় প্রকাশ মেহরা একটি ছবি করতে চেয়েছিলেন এবং তিনি আমাকে মহম্মদ আলির সঙ্গে কাস্ট করতে চেয়েছিলেন। ছবিটা কখনও তৈরি হয়নি, তবে তাঁর সঙ্গে কাটানো মুহূর্তগুলি স্মরণীয়। গিয়েছিলাম ছবিটি নিয়ে কথা বলতে, শেষ পর্যন্ত আর তৈরি হয়নি ছবিটা। তিনি সর্বশ্রেষ্ঠ এবং তাঁর মৃত্যুতে আমি শোকাহত। তিনি কেবল রিংয়ের ভিতরেই নয় বাইরেও লড়াকু ছিলেন।'

 

বন্ধ করুন