বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ‘শালিনী সবর্দা সঠিক, আমি ওর কথা শুনে চলি’, যৌন নির্যাতনের অভিযোগ আনা বউকে নিয়ে এটাই বলেছিলেন হানি সিং

‘শালিনী সবর্দা সঠিক, আমি ওর কথা শুনে চলি’, যৌন নির্যাতনের অভিযোগ আনা বউকে নিয়ে এটাই বলেছিলেন হানি সিং

হানি সিং-এর বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ

‘শালিনী আমার সবচেয়ে কাছের বন্ধু, আমি সবসময় ওর কথা শুনি..’, বলেছিলেন হানি সিং। 

হানি সিংয়ের বিরুদ্ধে গার্হস্থ্য হিংসাব এবং একাধিক নারীর সঙ্গে যৌন সম্পর্ক রাখার অভিযোগ এনেছেন স্ত্রী শালিনী। মঙ্গলবার এই খবর প্রকাশ্যে আসবার পর থেকেই তোলপাড়া বলিউড মিউজিক ইন্ডাস্ট্রিতে। ১০ বছরের বিবাহিত জীবন হানি সিং ও শালিনীর। ২০১৪ সালে নিজের মিউজিক রিয়ালিটি শো ‘ইন্ডিয়াজ র ট্যালেন্ট’-এর মঞ্চে স্ত্রীর সঙ্গে গোটা দুনিয়ার পরিচয় করিয়ে দিয়েছিলেন হানি সিং। 

প্রথমবার ইন্ডিয়ান টেলিভিশন শো-তে হানি সিংয়ের স্ত্রীর উপস্থিতি নজর কেড়েছিল। জানা যায় এই শো-এর শ্যুটিং শুরুর আগেই মানসিকভাবে আচমকা ভেঙে পড়েছিলেন ব়্যাপার। শো লঞ্চের ঠিক আগের দিন নাভার্স ব্রেকডাউনের জেরে শ্যুটিং থেকে পিছিয়ে এসেছিলেন। এরপর সেটে পৌঁছে গোটা পরিস্থিতি সামাল দেন শালিনী। 

চার ঘন্টা দেরিতে শুরু হয়েছিল শ্যুটিং। কিন্তু শেষমেষ স্বামীকে শ্যুটের জন্য রাজি করিয়েছিলেন শালিনী। সেদিন শ্যুটিংয়ের ফাঁকে হিন্দুস্তান টাইমসকে হানি সিং জানিয়েছিলেন, ‘শালিনী আমার সবচেয়ে কাছের বন্ধু, আমি সবসময় ওর কথা শুনি.. আজও আমি এটা উপলব্ধি করলাম ও আমার জীবনের কতটা জরুরি অংশ এবং সব বিষয় নিয়েই ওর মতামত সঠিক হয়’। 

দিল্লির তিস হাজারি কোর্টে হৃদেশ সিং (হানি সিং-এর আসল নাম)-এর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। যৌন হেনস্থা, মানসিক নির্যাতন, ও আর্থিক ভাবে নিগ্রহের অভিযোগ দায়ের করেছেন হানি সিং-এর বউ, শালিনী। শুধু হানি সিং-ই নন, তাঁর বাবা-মা এবং বোনের বিরুদ্ধে অভিযোগের আঙুল তুলেছেন শালিনী। ৩ অগস্ট, মঙ্গলবার মামলা দাখিল করা হয়। চিফ মেট্রোপলিট্যান ম্যাজিস্ট্রেট তানিয়া সিংয়ের এজলাসে মামলাটি ওঠে।

২০১১ সালে তাঁরা শিখ রীতি অনুযায়ী দিল্লির ফার্ম হাউজে তাঁরা বিয়ে করেন। সে বছরই ‘ককটেল’ ছবিতে ‘আংরেজি বিট’ গানটি ছিল হানির জনপ্রিয়তার চাবিকাঠি।শালিনীর অভিযোগ হানিমুনের পর থেকেই দূরত্ব তৈরি হয়েছিল দম্পতির মধ্যে, একাধিক নারীর সঙ্গে যৌন সম্পর্কে হামেশাই লিপ্ত হন হানি সিং। এই ব্যাপারে প্রশ্ন করলেই কপালে জুটত মারধর। 

আগামী ২৮ অগস্টের মধ্যে র‌্যাপার-গায়ককে তাঁর বয়ান আদালতের সামনে জমা দিতে হবে। এবং আপাতত হানি সিং ও শালিনীর নামে যে সমস্ত সম্পত্তি রয়েছে তা বিক্রি করা যাবে না।

বন্ধ করুন