বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Rajinikanth: আমার-আপনার মতোই নাজেহাল রজনী! কারণ ওঁর বাড়িতেও ঢুকে পড়েছে এই জিনিস

Rajinikanth: আমার-আপনার মতোই নাজেহাল রজনী! কারণ ওঁর বাড়িতেও ঢুকে পড়েছে এই জিনিস

রজনীকান্তের বাড়িতে পরিচালক ঋষভ শেট্টি

Rajinikanth’s home: চেন্নাইয়ে রজনীকান্তের বাড়িতে মশার উৎপাত রয়েছে। প্রবীণ অভিনেতার সঙ্গে সম্প্রতি দেখা করতে গিয়েছেন ‘কানতারা’ পরিচালক ঋষভ শেট্টি। তাঁর শেয়ার করা ছবিতেই এই জিনিসটা খেয়াল করেছেন নেটিজেন। 

আর পাঁচটা সাধারণ মানুষের মতোই মশার উপদ্রব রয়েছে অভিনেতা রজনীকান্তের বাড়িতে। তাই তো অভিনেতার বাড়ির ছবি শেয়ার হতেই নেটিজেনরা খেয়াল করেছেন ঘরে মশার ব্যাট রয়েছে। সম্প্রতি কানতারা খ্যাত অভিনেতা-পরিচালক ঋষভ শেট্টি রজনীকান্তের সঙ্গে দেখা করতে থালাইভার বাড়িতে গিয়েছিলেন। তাঁদের ব্যক্তিগত সাক্ষাতের ছবি নেটমাধ্যমে পোস্ট করেন ঋষভ।

ঋষভের শেয়ার করা ছবিতে দেখা গিয়েছে, অভিনেতা থালাইভার পা ছুঁয়ে আশীর্বাদ নিচ্ছেন। কাউচে বসে গভীর আলোচনা করছেন। ভক্তদের সবচেয়ে বেশি যে বিষয়টি মনোযোগ আকর্ষণ করেছে, রজনীকান্তের বাড়িতে 'মধ্যবিত্ত' মশার ব্যাট, পাশের টেবিলের উপরে প্লাগ ইন করা রাখা হয়েছে। সেন্টার টেবিলের নিচে আরেকটি মশার ব্যাটও দেখা গিয়েছে।

আরও পড়ুন: ক্যামেরার সামনে ঝড় তুলেছেন, ‘নো প্যান্ট’ ট্রেন্ডে বিশ্বাস করেন এই ৭ বলি নায়িকা

রজনীকান্তের বাড়িতে মশা মারার ব্যাট দেখে এক নেটিজেনের মন্তব্য, ‘রজনী স্যারের মশা মারার ব্যাট দেখে স্বস্তি পেলাম। ভাবতাম (মশা) তাঁর বাড়িতে ঢোকার সাহস পায় না।’ অপর এক নেটিজেনের মন্তব্য, ‘এমনকি রজনীকান্তও বাড়িতে মশার ব্যাট ব্যবহার করেন, আমি ভেবেছিলাম এটি মধ্যবিত্ত বাড়িতেই থাকে।’

আরও পড়ুন: ভুল কথা, ভুল কাজ! নিজের দোষেই নাকি কেরিয়ার গোল্লায় গিয়েছে এই ৬ তারকার

মুক্তির পর থেকেই বিপুল জনপ্রিয়তা পেয়েছে ঋষভ শেট্টি পরিচালিত ‘কানতারা’। ছবিটির প্রশংসায় পঞ্চমুখ দক্ষিনী সুপারস্টার রজনীকান্ত। ছবিটির পরিচালক ঋষভ শেট্টিকে নিজের বাড়িতে ডেকে অভিনন্দন জানান সুপারস্টার। এমনকি উত্তরীয় পরিয়ে তাঁকে সম্মান জানান থালাইভা।

আরও পড়ুন: সময় কাটানোর জায়গা নাকি জিম! এই ৬ স্টার কিডের এটাই নাকি পছন্দ

রজনীকান্তের সঙ্গে সাক্ষাৎকারের একাধিক ছবি পোস্ট করেন ঋষভ। রজনীকান্তকে ধ্যনবাদ জানিয়ে ঋষভ লিখেছেন, ‘আপনি যদি একবার আমাদের প্রশংসা করেন, আপনি তো একশোবার প্রশংসানীয় কাজ করেছেন। আপনাকে ধন্যবাদ, রজনীকান্ত স্যার, আপনার প্রশংসার জন্য আমরা সবসময় কৃতজ্ঞ।’

বন্ধ করুন