বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > Eye Pain Tips: চোখ জ্বালা, ব্যথায় কষ্ট পাচ্ছেন? এই ঘরোয়া উপায়ে পাবেন মুক্তি
চোখ জ্বালার সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে শশা।

Eye Pain Tips: চোখ জ্বালা, ব্যথায় কষ্ট পাচ্ছেন? এই ঘরোয়া উপায়ে পাবেন মুক্তি

অনেকক্ষণ মোবাইল, ল্যাপটপের সামনে বসে থাকার ফলে চোখ জ্বালা করে, লাল হয়ে যায়। চোখের এই সমস্ত সমস্যা উপেক্ষা না-করে, চোখের যত্ন নিন।

মানবদেহের সবচেয়ে সংবেদনশীল অঙ্গ হল চোখ। বর্তমানে যে হারে মোবাইল, ল্যাপটপ বা কম্পিউটারের ব্যবহার বেড়েছে, তার ফলে সবচেয়ে বেশি চোখের ওপরই চাপ পড়েছে। স্বাভাবিক ভাবেই বেড়ে চলেছে, মাথা ব্যথা, চোখে ব্যথার সমস্যা। অনেকক্ষণ মোবাইল, ল্যাপটপের সামনে বসে থাকার ফলে চোখ জ্বালা করে, লাল হয়ে যায়। চোখের এই সমস্ত সমস্যা উপেক্ষা না করে, চোখের যত্ন নিন। তা না হলে ভবিষ্যতে গুরুতর সমস্যা দেখা দিতে পারে। এর জন্য কিছু ঘরোয়া উপায়ে কাজে লাগিয়ে চোখ ব্যথা জ্বালা করার সমস্যা দূর করতে পারেন।

চোখে ব্যথার লক্ষণ

১. আলোর প্রতি সংবেদনশীলতা

২. চোখ লাল হয়ে যাওয়া

৩. চোখ জ্বালা করা

৪. চোখ থেকে জল পড়া

৫. মাথা ব্যথা

চোখ ব্যথা ও চোখ জ্বালা কম করার ঘরোয়া উপায়

১. চোখ জ্বালার সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে শশা। এর জন্য ফ্রিজে রাখা ঠান্ডা শশাকে গোল গোল কেটে নিন এবং কিছু ক্ষণের জন্য চোখের ওপর দিয়ে রাখুন।

২. শশার মতোই আলুর স্লাইসও চোখের ওপর রাখতে পারেন। এ ছাড়া আলুর রস চোখে লাগালে, চোখ জ্বালা ও ব্যথা থেকে মুক্তি পেতে পারেন।

৩. গোলাপ জল ব্যবহার করলে শীঘ্র মাথা ব্যথা থেকে মুক্তি পেতে পারবেন। ঘুমাতে যাওয়ার আগে চোখে এক-দু ফোটা গোলাপ জল দিয়ে ঘুমান। গোলাপ জল দিয়ে চোখও ধুতে পারেন।

৪. চোখে এক ফোঁটা মধু দিন। এর ফলে যদি চোখ জ্বালা করে, তা হলে ভয় পাবেন না। কিছু ক্ষণের মধ্যে এটি ঠিক হয়ে যাবে। মধুর প্রভাবে তাড়াতাড়ি মাথা ব্যথা কমবে। 

৫. ঠান্ডা দুধ দিয়ে চোখ পরিষ্কার করতে পারেন। দুধে উপস্থিত একাধিক উপাদান সংক্রমণ ও ক্লান্তি দূর করে। ঠান্ডা দুধ দিয়ে নিয়মিত চোখের ম্যাসাজ করা উচিত।

৬. টি ব্যাগের সাহায্যেও চোখের জ্বালা দূর করতে পারেন। চোখ জ্বালা করলে গ্রিন টি ব্যাগ ব্যবহার করতে পারেন। এই টি ব্যাগগুলি ফ্রিজে রেখে ঠান্ডা করার পর ব্যবহার করা উচিত। এর ফলে চোখ জ্বালা কমবে।

Disclaimer- এই প্রতিবেদনে প্রদত্ত তথ্যের যথার্থতা ও বাস্তবিকতা সুনিশ্চিত করার যথাসম্ভব চেষ্টা করা হয়েছে। তবে এর নৈতিক দায়িত্ব হিন্দুস্তান টাইমস বাংলার নয়। তাই পাঠকদের কাছে আবেদন জানানো হচ্ছে, যে কোনও উপায় অবলম্বনের পূর্বে যথাযথ সাবধানতা অবলম্বন করবেন। চিকিৎসকদের পরামর্শ নিতে পিছপা হবেন না।

বন্ধ করুন