বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > প্রস্রাবকাণ্ড এবার আগ্নেয়গিরিতেও! অগ্নুৎপাতের কাছে মূত্রত্যাগ ঘিরে শোরগোল

প্রস্রাবকাণ্ড এবার আগ্নেয়গিরিতেও! অগ্নুৎপাতের কাছে মূত্রত্যাগ ঘিরে শোরগোল

হাওয়াইয়ের কিলাওয়েয়াতে অগ্নুৎপাত। via AP) (AP)

বহু নেটিজেন এই ঘটনার তুমুল প্রতিবাদ করেন। অনেকেই ক্ষোভের সুরে দাবি করেন যে, ওই ব্যক্তির উচিত সাংস্কৃতিক শিক্ষা গ্রহণ করা। এই ছবিগুলি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করা হয়েছে।

বিমানের মধ্যে , কিম্বা বিমানবন্দরের মধ্যে জনসমক্ষে প্রস্রাব ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য সারা দেশে। এদিকে, তারই মাঝে ইন্টারনেটে ঝড় তুলেছে আরও এক খবর। এবার এক সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে জানা গিয়েছে, হাওয়াইয়ের কিলাউইতে আগ্নেয়গিরি দেখার জায়গায় এক ব্যক্তি প্রস্রাব করেছেন। যে ছবি তিনি ইনস্টাগ্রাম পোস্ট করেছেন। সেই ছবি তিনি পরে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন।

ব্যক্তির এহেন কাণ্ডে, যারপরনাই ক্ষুব্ধ নেটিজেনরা। এক নামী সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, ইনস্টাগ্রামে ওই ব্যক্তি ছবি দেন প্রথমে। তীব্র জনরোষের মধ্যে পড়ে, তিনি পরে ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইল সরিয়ে ফেলেন। ছবিতে দেখা গিয়েছে, তিনি হাওয়াইয়ের কিলাউই আগ্নেয়গিরিতে প্রস্রাব করছেন। তবে এই ভাইরাল ছবির সত্যতা হিন্দুস্তান টাইমস বাংলা যাচাই করেনি। বহু নেটিজেন এই ঘটনার তুমুল প্রতিবাদ করেন। অনেকেই ক্ষোভের সুরে দাবি করেন যে, ওই ব্যক্তির উচিত সাংস্কৃতিক শিক্ষা গ্রহণ করা। এই ছবিগুলি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করা হয়েছে। @notahomebody এই প্রোফাইলের মাধ্যমে তিনি ইনস্টাগ্রামে ওই ছবিগুলি পোস্ট করেন। এক ব্যক্তি যিনি হাওয়াইয়ের অন্যতম সমাজকর্মী, তিনি বিষয়টি নিয়ে মুখ খোলেন। 

হাওয়াইয়ের ওই সমাজকর্মী বলছেন,  ‘হালেমাউমাউ ক্র্যাটারের একটি উল্লেখযোগ্য মাহাত্ম্য রয়েছে, সেটি একটি প্রতীক, আর তাই মানুষ ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন।’  অনেকেই ক্ষোভের সুরে বলছেন, গ্রামীণ হাওয়াইয়ের মানুষ কেমনভাবে প্রকৃতির সঙ্গে সম্পর্ক ধরে রাখে, তা অনেকেরই অজানা। আর সেই কারণেই এমন অপ সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ড চালানো হচ্ছে বলে তিনি অভিযোগ করেন। 

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

 

 

 

 

বন্ধ করুন