বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Fake! কর্পূরের ঘ্রাণে মোটেও অক্সিজেন বাড়ে না, স্পষ্ট জানালেন একাধিক চিকিত্সক
ছবি : টুইটার, ফেসবুক (Twitter, Facebook)
ছবি : টুইটার, ফেসবুক (Twitter, Facebook)

Fake! কর্পূরের ঘ্রাণে মোটেও অক্সিজেন বাড়ে না, স্পষ্ট জানালেন একাধিক চিকিত্সক

করোনায় অক্সিজেন লেভেল কমে গেলে কীভাবে তা বৃদ্ধি করা যাবে, তারই এক টোটকা ঘুরছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

সোশ্যাল মিডিয়া খুললেই গত কয়েকদিন ধরে অক্সিজেনের আকালের বিষয়টি চোখে পড়ছে। কিন্তু এরই মধ্যে অনেকে আবার টোটকাও দিচ্ছেন। করোনায় অক্সিজেন লেভেল কমে গেলে কীভাবে তা বৃদ্ধি করা যাবে, তারই এক টোটকা ঘুরছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

বলা হচ্ছে, সিলিন্ডার না মেলা পর্যন্ত কর্পূর-লবঙ্গ-জোয়ান একসঙ্গে পুঁটলি করে শ্বাস নিলে অক্সিজেন লেভেল বাড়বে। আর গত এক সপ্তাহে সেই টোটকা তুমুল ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। অনেকেই কপি-পেস্ট বা শেয়ারের মাধ্যমে টিপসটি ছড়িয়ে দিচ্ছেন। কিন্তু শেয়ার করার আগে আদৌ সত্যি কিনা যাচাই করেছেন তো?

অক্সিজেন তো বাড়বেই না। উল্টে বেশিমাত্রায় নিলে ক্ষতিকর বৈকি। এমনটাই বলছেন চিকিত্সকরা। ছবি : ফেসবুক
অক্সিজেন তো বাড়বেই না। উল্টে বেশিমাত্রায় নিলে ক্ষতিকর বৈকি। এমনটাই বলছেন চিকিত্সকরা। ছবি : ফেসবুক (Facebook)

এ বিষয়ে এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম বেশ কিছু চিকিত্সকের সঙ্গে কথা বলে। মুম্বইয়ের অ্যাপোলো স্পেকট্রা হাসপাতালের বিশেষজ্ঞ চিকিত্সক তুষার রানে বলেন, 'কর্পূর থেকে অক্সিজেন লেভেল বাড়ে না। অল্প মাত্রার শ্বাসকষ্টে বড়জোর একটা ঠান্ডা, আরামদায়ক অনুভূতি দিতে পারে। কিন্তু তা খুবই সীমিত পরিমাণে।'

শুধু তাই নয়, ডঃ রানে জানান, কর্পূরের কার্যকারিতার কোনও বৈজ্ঞানিক ভিত্তি নেই। সর্দি হলে ঝাঁঝের কারণে নাক খুলতে সামান্য সাহায্য করতে পারে। কিন্তু তাই বলে অক্সিজেনের ঘাটতির রোগীর ক্ষেত্রে এটি কোনও লাভ করবে না। ঘরোয়া টোটকা চেষ্টা করতে গিয়ে সময় নষ্ট হবে।

গুরুগ্রামের নারায়ণা হসপিটালের মেডিসিন বিশেষজ্ঞ ডঃ সতীশ কউল-ও একই কথা বললেন। তাঁর কথায়, 'এতে উল্টে নাকে, গলায় সমস্যা হবে। অক্সিজেন বৃদ্ধির তো প্রশ্নই ওঠে না। বুদ্ধি প্রয়োগ করে ভাবুন আর চিকিত্সকের পরামর্শ নিন।'

বেদিকিয়োর হেলথকেয়ার অ্যান্ড ওয়েলনেসের সিইও ডঃ সমুদ্রিকা পাতিল আরও আশঙ্কার কথা শোনালেন। তিনি বললেন, 'বেশি কর্পূরের ঘ্রাণ নিলে তার থেকে বিষক্রিয়া হবে। এর থেকে খিঁচুনি পর্যন্ত হতে পারে।'

তাই সোশ্যাল মিডিয়ায় কিছু শেয়ারের আগে অবশ্যই যাচাই করুন। সেটা ভাইরাল ছবি, ঘরোয়া টোটকা হোক, বা হেল্পলাইন।

বন্ধ করুন