বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Passport application rules- সহজে ও নিরাপদে পাসপোর্ট আবেদনের জন্য ব্যবহার করুন DigiLocker
নাগরিকদের জন্য ই-পাসপোর্ট সার্ভিস চালুর পরিকল্পনা করা হচ্ছে।
নাগরিকদের জন্য ই-পাসপোর্ট সার্ভিস চালুর পরিকল্পনা করা হচ্ছে।

Passport application rules- সহজে ও নিরাপদে পাসপোর্ট আবেদনের জন্য ব্যবহার করুন DigiLocker

  • পেপারলেস গভর্নেন্সকে সার্থক করে তোলার লক্ষ্যে ডিজিলকার এমন একটি মঞ্চ, যেখানে ডিজিটাল পদ্ধতিতে সার্টিফিকেট/নথি ইস্যু এবং যাচাইয়ের সুযোগ রয়েছে।

পাসপোর্ট আবেদনের সময় এবার থেকে ডিজিলকারের লিঙ্কও দিতে পারে আবেদনকারীরা। বিদেশ মন্ত্রকের কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী ভি মুরলিধরণ একটি স্কিম লঞ্চ করে ঘোষণা করেন, ভারতের যে কোনও স্থান থেকে পাসপোর্টের সঙ্গে যুক্ত নানান বিষয় আবেদন জানানোর সময় আবেদনকারী এবার কেন্দ্র সরকারের ডিজিলকারের সহায়তা নিতে পারবেন।

বিদেশ মন্ত্রকের তরফে প্রকাশিত একটি বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, এই নতুন স্কিমের ফলে যে সমস্ত আবেদনেকারীরা পাসপোর্ট সংক্রান্ত সেবার জন্য আবেদন জানাচ্ছেন, তাঁরা তাঁদের ডিজিলকারের লিঙ্কের উল্লেখ করতে পারেন। এর সাহায্যে পেপারলেস প্রক্রিয়ায় পাসপোর্ট সেবার জন্য প্রয়োজনীয় নতিপত্র জমা দেওয়া সম্ভব হবে। সে ক্ষেত্রে আসল নথি সঙ্গে নিয়ে যাওয়ার কোনও প্রয়োজন থাকবে না। 

ডিজিটাল ইন্ডিয়া তৈরির মূল হাতিয়ার ডিজিলকার। যেখানে একটি পাবলিক ক্লাউডের নিরাপদ ও ব্যক্তিগত স্থানে নিজেদের সমস্ত গুরুত্বপূর্ণ নথি তুলে রাখার সুবিধা লাভ করা যায়। একই ছাতার তলায় ব্যক্তি তাঁর সমস্ত নথিপত্র নিরাপদে রাখতে পারে।

পেপারলেস গভর্নেন্সকে সার্থক করে তোলার লক্ষ্যে ডিজিলকার এমন একটি মঞ্চ, যেখানে ডিজিটাল পদ্ধতিতে সার্টিফিকেট/নথি ইস্যু এবং যাচাইয়ের সুযোগ রয়েছে। এর ফলে স্বাভাবিক ভাবেই কোনও কাজের জন্য সমস্ত নথি সঙ্গে নিয়ে যাওয়ার প্রয়োজন পড়বে না। একবার পাসপোর্ট ডিজিলকারে আপলোড হয়ে গেলে, এ সম্পর্কে বিস্তৃত তথ্য কর্তৃপক্ষের নাগালের মধ্যে থাকবে। তার পর দেশের যে কোনও স্থান থেকে এটি ব্যবহার করা যাবে। বিশেষত পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে, তা পুনরুদ্ধারের কাজ হবে সহজে। বিদেশ মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, গত ৬ বছরের মধ্যে পাসপোর্ট সেবায় উন্নতি দেখা গিয়েছে।

মন্ত্রকের তরফে এ-ও জানানো হয়েছে যে, নাগরিকদের জন্য ই-পাসপোর্ট সার্ভিস চালুর পরিকল্পনা করা হচ্ছে। এর ফলে নিরাপত্তা বৃদ্ধি পাবে ও বিদেশের এয়ারপোর্টগুলিতে ইমিগ্রেশন প্রক্রিয়া সহজ হবে।

পাসপোর্ট সেবা প্রোগ্রাম ভি২.০-য় আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স, মেশিন লার্নিং, চ্যাট-বোট, অ্যানালিটিকস, রোবোটিক প্রসেস অটোমেশনের মতো প্রযুক্তি নাগরিকদের জন্য নানান প্রক্রিয়াকে সহজ করে তুলবে এবং দ্রুত সেবা প্রদানকে আরও ত্বরান্বিত করবে। 

বন্ধ করুন