বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > মোদীর নিন্দায় মুখর, নেহেরুর প্রশংসায় পঞ্চমুখ শিবসেনা, আরএসএসকেও তুলোধোনা
শিবসেনার মুখপত্র সামনায় সাংসদ সঞ্জয় রাউত বিজেপির বিরুদ্ধে কলম ধরেছেন  (HT_PRINT)
শিবসেনার মুখপত্র সামনায় সাংসদ সঞ্জয় রাউত বিজেপির বিরুদ্ধে কলম ধরেছেন  (HT_PRINT)

মোদীর নিন্দায় মুখর, নেহেরুর প্রশংসায় পঞ্চমুখ শিবসেনা, আরএসএসকেও তুলোধোনা

  • পণ্ডিত জওহরলাল নেহেরু ও মৌলানা আবুল কালাম আজাদকে বাদ দিয়ে ভারতের স্বাধীনতার ইতিহাস সম্পূর্ণ হতে পারে না।

শিবসেনা সাংসদ সঞ্জয় রাউত। দলীয় মুখপত্র সামনাতে এবার নেহেরুর প্রশংসা করলেন তিনি। তিনি লিখেছেন, নেহেরু যে জাতীয় সম্পত্তি তৈরি করে গিয়েছেন সেটা বেসরকারিকরণ করছে কেন্দ্র। এব্যাপারে ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহেরুর প্রতি নরেন্দ্র মোদীর সরকারের কৃতজ্ঞ থাকা দরকার। আরএসএস ও জনসংঘকেও তুলোধোনা করেছেন তিনি। তিনি লিখেছেন, ‘স্বাধীনতা আন্দোলনে জেল খেটেছেন নেহেরু। অথচ ভারত ছাড়ো আন্দোলনে আরএসএসের কোনও ভূমিকা নেই।’

রাউত লিখেছেন, ‘ভারতের স্বাধীনতার ৭৫ বছর পূর্তি হচ্ছে। ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ হিস্টরি রিসার্চ, আজাদ কি অমৃত মহোৎসবের পোস্টার থেকে নেহেরুর ছবি বাদ দিয়েছে। এখানে মহাত্মা গান্ধী, সুভাষ চন্দ্র বসু,  বাবাসাহেব আম্বেদকর, সর্দার পটেল, ভগৎ সিং, রাজেন্দ্র প্রসাদ,পণ্ডিত মদন মোহন মালব্য ও বীর সাভারকরের ছবি রয়েছে।কিন্তু পণ্ডিত জওহরলাল নেহেরু ও মৌলানা আবুল কালাম আজাদকে বাদ দিয়ে ভারতের স্বাধীনতার ইতিহাস সম্পূর্ণ হতে পারে না। এটা সরকারের সংকীর্ণতার পরিচয়।’

তিনি লিখেছেন, ‘নেহেরু বা কংগ্রেসের পলিসির সঙ্গে তোমার মতবিরোধ থাকতে পারে। কিন্তু ইতিহাস থেকে তাঁকে মুছে ফেলার অর্থ প্রত্যেক স্বাধীনতা সংগ্রামীকে অপমান করা। ভারত ছাড়ো আন্দোলনের জেরে জেলে গিয়েছিলেন নেহেরু। তখন আরএসএস বা জন সংঘকে কোথাও দেখা যায়নি।’ একেবারে সরাসরি আক্রমণ আরএসএসকে।

 

বন্ধ করুন