বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > 'ক্ষমার অযোগ্য,' ভিনরাজ্যের শ্রমিক ইস্যুতে কেন্দ্রের সমালোচনায় সুপ্রিম কোর্ট
অতিমারি পরিস্থিতিতে চরম ভোগান্তিতে পরিযায়ী শ্রমিকরা (প্রতীকী ছবি)
অতিমারি পরিস্থিতিতে চরম ভোগান্তিতে পরিযায়ী শ্রমিকরা (প্রতীকী ছবি)

'ক্ষমার অযোগ্য,' ভিনরাজ্যের শ্রমিক ইস্যুতে কেন্দ্রের সমালোচনায় সুপ্রিম কোর্ট

  • অতিমারি পরিস্থিতি শেষ না হওয়া পর্যন্ত দেশের এই সমস্ত শ্রমিকদের জন্য শুকনো রেশনের ব্যবস্থা করার ব্যাপারে সমস্ত রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলকে নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

ভিনরাজ্যে কাজে যাওয়া শ্রমিক ও অসংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিক ইস্য়ুতে এবার সুপ্রিম কোর্টের ভর্ৎসনার মুখে কেন্দ্র। কেন্দ্রের ‘গা ছাড়া মনোভাবকে’ মঙ্গলবার কার্যত সমালোচনা করেছে সুপ্রিম কোর্ট। পাশাপাশি অসংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিকদের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে নির্দেশও দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। প্রসঙ্গত  তিনজন সমাজকর্মীর করা আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতেই সুপ্রিম কোর্টের এই পর্যবেক্ষণ।

অংসগঠিত ক্ষেত্রে শ্রমিকদের তথ্যপঞ্জি তৈরিতেও কেন্দ্রের উদাসীনতা নিয়ে কড়া সমালোচনা করেছে সুপ্রিম কোর্ট। গোটা ঘটনাকে ‘ক্ষমার অযোগ্য’ বলে উল্লেখ করেছে দেশের সর্বোচ্চ আদালত। অতিমারি পরিস্থিতি শেষ না হওয়া পর্যন্ত দেশের এই সমস্ত শ্রমিকদের জন্য শুকনো রেশনের ব্যবস্থা করার ব্যাপারে সমস্ত রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলকে নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। পাশাপাশি তাঁদের জন্য অতিরিক্ত খাদ্যশস্যের ব্যবস্থা করারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে কেন্দ্রকে। এদিকে ‘ওয়ান নেশন ওয়ান রেশন’ কার্ড স্কিমটি লাগু করার জন্য ৩১শে জুলাইয়ের  ডেডলাইন বেঁধে দিয়েছে সর্বোচ্চ আদালত।

 অন্যদিকে অসংগঠিত ক্ষেত্রে শ্রমিকদের নথিভুক্তিকরণের ব্যাপারে ২০১৮ সালের ২১শে অগস্টের একটি নির্দেশকে উল্লেখ করে সুপ্রিম কোর্ট শ্রম মন্ত্রককে নির্দেশ দিয়েছে।পাশাপাশি এটাও জানিয়ে দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট যে শ্রমিক সংক্রান্ত ব্যাপারে কেন্দ্রের অবস্থানে একেবারে সন্তুষ্ট নয় আদালত। অসংগঠিত ক্ষেত্রের শ্রমিকরা যখন দীর্ঘ অপেক্ষা করছেন তাঁদের রেজিস্ট্রেশনের জন্য, সরকারি স্কিমের সুযোগ পাওয়ার জন্য তখন কেন্দ্রীয় শ্রমমন্ত্রকের গা ছাড়া মনোভাব ক্ষমার অযোগ্য। জানিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। 

 

বন্ধ করুন