বাংলা নিউজ > ময়দান > ক্রিকেটের ইতিহাসে অবিশ্বাস্য রেকর্ড অস্ট্রেলিয়া মহিলা দলের, ছাপিয়ে গেল পন্টিংদের
অস্ট্রেলিয়া মহিলা দল। (ছবি সৌজন্য, টুইটার @cricketcomau)
অস্ট্রেলিয়া মহিলা দল। (ছবি সৌজন্য, টুইটার @cricketcomau)

ক্রিকেটের ইতিহাসে অবিশ্বাস্য রেকর্ড অস্ট্রেলিয়া মহিলা দলের, ছাপিয়ে গেল পন্টিংদের

  • পন্টিংদের সোনার দলের রেকর্ড টপকে গেল।

শুভব্রত মুখার্জি

গত বছর টি-টোয়েন্টি মহিলা বিশ্বকাপের ফাইনালে ভারতের বিরুদ্ধে খেলেছিলেন অ্যালিসা হিলিরা। সেই ম্যাচে অনায়াসে জয়লাভ করেছিল অস্ট্রেলিয়ার মহিলা ক্রিকেট দল। ম্যাচটা চোখে আঙুল দিয়ে সারা বিশ্বের কাছে দেখিয়ে দিয়েছিল বিশ্ব ক্রিকেটে মহিলা বিভাগে অন্যান্য দলগুলির তুলনায় ঠিক কতটা এগিয়ে রয়েছে অজি মহিলা দল। ফাইনাল ম্যাচে একেবারে একপেশে লড়াইয়ে অসাধারণ জয় তুলে এনেছিল অস্ট্রেলিয়ার মহিলা ক্রিকেট দল। মহিলা ক্রিকেটে তাদের আধিপত্য বজায় রেখে বিশ্বরেকর্ড গড়ে ফেললেন হিলিরা।

রবিবারের ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের মহিলা দলকে হারাল অজিদের মহিলা দল। রবিবার প্রথমে ব্যাট করে নির্ধারিত ৫০ ওভারের খেলা শেষ হওয়ার আগেই নিউজিল্যান্ড মহিলা দল ২১২ রানে অলআউট হয়ে যায়। জবাবে ২১৩ রান তাড়া করতে নেমে ৬৯ বল বাকি থাকতে ৬ উইকেটে বিশাল জয় তুলে নেয় অজিরা। নিউজিল্যান্ডের হয়ে ব্যাট হাতে ডাউন (৯০), কের (৩৩), সাদারওয়েট (৩২) ভালো রান করেন। অজিদের হয়ে হিলি ৬৫, পেরি অপরাজিত ৫৬ এবং গার্ডনার অপরাজিত ৫৩ রানের ইনিংস খেলে জয় সুনিশ্চিত করেন।

এটি মহিলা ক্রিকেটে অজি মহিলা দলের টানা ২২ তম জয়। যা বিশ্বরেকর্ড। বলা ভালো পুরুষ বা মহিলা ক্রিকেটের ইতিহাসে এই নজির বিরল।২০১৮ সালের ১২ মার্চ থেকে ভারতকে হারিয়ে এই জয়যাত্রা শুরু করেছিলেন পেরিরা। তা আজও অক্ষত। এই সময়ে তারা ভারত (৩-০), পাকিস্তান (৩-০), নিউজিল্যান্ড (৩-০), ইংল্যান্ড (৩-০), ওয়েস্ট ইন্ডিজ (৩-০), শ্রীলঙ্কা (৩-০) এবং ফের নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ৩-০ ফলে সিরিজ জেতার পরে আজকের ম্যাচ জিতে বিরল নজির স্থাপন করলেন। সঙ্গে সঙ্গে তাঁরা ভেঙে দিলেন অজিদের পুরুষ দলের রেকর্ডও। ২০০৩ সালের ১১ জানুয়ারি থেকে ২৪ শে মে রিকি পন্টিংয়ের দলের সেইসময় টানা ২১ টি একদিনের ম্যাচে জয় পেয়েছিল।

বন্ধ করুন