বাংলা নিউজ > ময়দান > আক্রম, মিয়াঁদাদ অনেক পিছনে, বাবর এখন ব্র্যাডম্যান, প্রশংসায় পাক প্রাক্তনী
আক্রম-মিয়াঁদাদ-ইনজামাম ও বাবার আজম (ছবি:গেটি ইমেজ)

আক্রম, মিয়াঁদাদ অনেক পিছনে, বাবর এখন ব্র্যাডম্যান, প্রশংসায় পাক প্রাক্তনী

আক্রম-মিয়াঁদাদদের পিছনে ফেলে বর্তমানের ব্র্যাডম্যান-লারা হয়ে উঠছেন বাবর আজম। তবে বাবরের চেয়ে কোন ক্রিকেটার বড় সেটাও জানালেন পাকিস্তানের প্রাক্তন অধিনায়ক।

পাকিস্তানের প্রাক্তন অধিনায়ক রশিদ লতিফ তাঁর দেশের ক্রিকেট নিয়ে বড় দাবি করেছেন। নিজদের দেশের সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ পাকিস্তানি খেলোয়াড়ের নাম জানালেন লতিফ। তিনি দাবি করেছেন, পাকিস্তান ক্রিকেটের সেরা খেলোয়াড়দের তালিকার শীর্ষে রয়েছেন বর্তমান পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর আজম। এটি লক্ষণীয় যে রশিদ লতিফ তাঁর আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের ১১ বছরের মধ্যে পাকিস্তানের সেরা ক্রিকেটারদের সাথে ড্রেসিংরুম ভাগ করেছিলেন। তবে তিনি বিশ্বাস করেন যে বাবর আজমের পারফরমেন্স সেই সমস্ত খেলোয়াড়দের পিছনে ফেলেছে।

নিজের ইউটিউবে আপলোড করা একটি ভিডিয়োতে বাবর আজমের প্রশংসা করেছেন পাকিস্তানের প্রাক্তন অধিনায়ক রশিদ লতিফ। তিনি বাবরকে আধুনিক দিনের ডন ব্র্যাডম্যান এবং ব্রায়ান লারার সঙ্গে তুলনা করেছেন। এই ভিডিয়োতে লতিফ বলেছেন,‘আমি নিজেই টুইট করেছিলাম ২০১৯ সালে যখন আমাদের দল ইংল্যান্ড সফরে গিয়েছিল। আমি যেসব খেলোয়াড়ের সঙ্গে খেলেছি তাদের নাম লিখেছিলাম, মিয়াঁদাদ, ওয়াসিম, ওয়াকার,ইনজামাম, ইউসুফ, ইউনিস এবং শাকলাইন। তিনি কিন্তু তাদের সবাইকে পিছনে ফেলে দিয়েছেন। অনেক আগের কথা বলছি। তারপর থেকে সে অনেক বড় এবং ভালো খেলোয়াড় হয়ে উঠেছেন। আমরা এখানে তুলনা করতে পারি না কারণ আমি এখানে শুধু বাবরের কথা বলছি না, বিরাট, রোহিত, উইলিয়ামসন আজকে যারা ওয়ানডে খেলছে তারা সবাই ১০ জন ফিল্ডার নিয়ে ব্যাটিং করছে।’

বাবর আজমকে বর্তমান প্রজন্মের ডন ব্র্যাডম্যান ও ব্রায়ান লারা বলেছেন। যদিও এই সময়ে লতিফ পাকিস্তানের প্রাক্তন খেলোয়াড় সঈদ আনোয়ারকে বাবরের চেয়ে বড় বলে আখ্যায়িত করেছেন। এটি উল্লেখযোগ্য যে সঈদ আনোয়ার তাঁর ক্যারিয়ারে পাকিস্তানের হয়ে ৫৫টি টেস্ট এবং ২৪৭টি ওডিআই খেলেছেন এবং ১৩ বছর ধরে ওডিআই ক্রিকেটে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত স্কোরের রেকর্ডটি ধরে রেখেছেন। রশিদ লতিফ মনে করেন পাকিস্তান ক্রিকেটের ইতিহাসে আনোয়ারের মতো ক্রিকেটার এখনও আসেনি।

লতিফ বলেন,‘আমি আনোয়ারের কথা বলতে চাই, তার মতো আর কোনও ব্যাটসম্যান হয়নি। পাকিস্তান ক্রিকেটের ইতিহাসে তিনি যে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ ক্রিকেটার হিসেবে জন্মগ্রহণ করেছেন তাতে কোনও সন্দেহ নেই। আমি তাঁকে খুব কাছ থেকে দেখেছি এবং বিশ্বাস করি তিনি একজন ক্যারিশম্যাটিক খেলোয়াড়। যিনি খুব কমই অনুশীলনে যেতেন। তাই তাদের সাথে বয়সের তুলনা করা ঠিক হবে না। আজকের সময়ে বৃত্তের ভিতরে ৫ খেলোয়াড় থাকে যেখানে সেই সময়ে চার খেলোয়াড় থাকত। আনোয়ার ও ইনজামামের আমলে থাকলে তিনি থাকলে সেই সময়কার ফিল্ডারদের প্রাণ বের করে নিতেন। তিনি তাঁর সময়ের সেরা খেলোয়াড় ছিলেন। তিনি বর্তমান সময়ের ব্র্যাডম্যান ও লারা।’

বন্ধ করুন