সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার জবাব দিলেন যুবরাজ। ছবি- টুইটার।
সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার জবাব দিলেন যুবরাজ। ছবি- টুইটার।

করোনা যুদ্ধে আফ্রিদির পাশে দাঁড়িয়ে সমালোচিত যুবরাজ, জবাব দিলেন টুইটারে

  • প্রাক্তন পাক অধিনায়কের সমর্থনে ব্যাট ধরেন টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন অল-রাউন্ডার। সোশ্যাল মিডিয়ায় যুবি আফ্রদির ফাউন্ডেশনের পাশে দাঁড়ানোর আবেদন জানান।

আপাত নীরিহ একটা টুইট। মানবিকতার মাপকাঠিতে প্রশংসার যোগ্য। তবে নেটিজেনদের মধ্যে তার এমন বিরূপ প্রভাব পড়বে, তা স্বপ্নেও ভাবেননি যুবরাজ সিং। শেষমেশ সোশ্যাল মিডিয়ায় যে প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছিল তাঁর মন্তব্য নিয়ে, তার জোরালো জবাবও দিতে হল যুবিকে।

করোনা মহামারীর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে শুরু থেকেই মাঠে নেমেছেন প্রাক্তন পাক অধিনায়ক শাহিদ আফ্রিদি। নিজের ফাউন্ডেশনের হয়ে পাক তারকা করোনা পীড়িতদের হাতে প্রয়োজনীয় সামগ্রী তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় আফ্রিদির এই প্রয়াসকে সমর্থন করেন হরভজন সিং। যার প্রত্যুত্তরে আফ্রিদও ধন্যবাদ জানান ভাজ্জিকে। এবার প্রাক্তন পাক অল-রাউন্ডারের সমর্থনে ব্যাট ধরেন টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন তারকা যুবরাজ সিং। সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি আফ্রদির ফাউন্ডেশনের পাশে দাঁড়ানোর কথা জানান। সঙ্গে বাকিদের কাছে আবেদন জানান আফ্রিদির ফাউন্ডেশনে অর্থ দান করার জন্য।

যুবরাজ টুইটে লেখেন, 'এটা আমাদের পরীক্ষার সময়। এখন সময় একে অপরের, বিশেষ করে যারা হতভাগ্য, তাদের পাশে দাঁড়ানোর। চলুন আমরা আমাদের দায়িত্ব পালন করি। করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে এই মহান যুদ্ধে সামিল হওয়ার জন্য শাহিদ আফ্রিদি ও আফ্রিদি ফাউন্ডেশনকে সমর্থন করছি। দয়া করে দান করুন donatekarona.com-এ।' যুবরাজ এই বার্তাটি ট্যাগ করেন ভাজ্জিকেও।

নেটিজেনরা এতেই চটে লাল। সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁদের সমবেত আক্রমণ ধেয়ে আসে যুবরাজের দিকে। কারও দাবি, যুবরাজ পাক তারকার সমর্থনে কথা বলে নিজের দেশকে অপমানিত করেছেন। আবার কারও মতে কাশ্মীর নিয়ে আফ্রিদি যেভাবে উস্কানিমূলক কথাবার্তা বলেন এবং ভারতীয় জওয়ানদের অপমান করেন, তার পর পাক তারকার ফাউন্ডেশনের হয়ে আবেদন করা উচিত হয়নি যুবির। কেউ আবার সরাসরি প্রশ্ন তোলেন যে, যুবরাজ প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে অর্থ দানের জন্য কেন আবেদন জাননানি?

বিতর্কের রেশ বেশিদূর গড়াতে না দিয়ে যুবরাজ পালটা টুইট করে সমালোচকদের মুখ বন্ধ করে দেন। তিনি লেখেন, 'আমি সত্যিই বুঝতে পারছি না আর্তদের সাহায্যের আবেদন কীভাবে অসঙ্গত হতে পারে। আমি শুধু নিজ নিজ দেশের মানুষদের স্বাস্থ্যসুরক্ষা নিশ্চিত করতে সাহায্য করার অনুরোধ জানিয়েছি। কারও আবেগে আঘাত করার উদ্দেশ্য আমার ছিল না। আমি একজন ভারতীয়, সর্বদা আমার রক্ত নীলই থাকবে এবং আমি সবসময় মানবিকতার পাশে দাঁড়াব। জয় হিন্দ।'

বন্ধ করুন