বাংলা নিউজ > ময়দান > IND vs ENG: ‘কখনও কখনও নিজেদের খাঁচায় বন্দি কোন জন্তু মনে হয়’, জৈব বলয়ের নিয়ম শিথিল করার ECB-র সিদ্ধান্তকে সমর্থন শামসির
তাবরেজ শামসি। (ছবি:টুইটার)
তাবরেজ শামসি। (ছবি:টুইটার)

IND vs ENG: ‘কখনও কখনও নিজেদের খাঁচায় বন্দি কোন জন্তু মনে হয়’, জৈব বলয়ের নিয়ম শিথিল করার ECB-র সিদ্ধান্তকে সমর্থন শামসির

  • সম্প্রতি ইসিবির তরফে জানানো হয় ভারত-ইংল্যান্ড সিরিজে জৈব বলয়ের ঘেরাটোপে ছাড় দেওয়া হবে।

ইংল্যান্ড ক্রমশই বাড়ছে করোনার ডেল্টা প্রজাতির আক্রান্তের সংখ্যা। এরই মধ্যে সদ্য করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ভারতীয় উইকেটরক্ষক ঋষভ পন্ত ও ভারতীয় দলের থ্রো ডাউন বিশেষজ্ঞ দয়ানন্দ গরানী। তবে সেসব তোয়াক্কা না করেই আসন্ন ভারত-ইংল্যান্ড টেস্ট সিরিজে জৈব বলয়ের আঁটুনি ঢিলে করার সিদ্ধান্ত সাফ জানিয়ে দিয়েছেন ইংল্যান্ড এন্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান কার্যনির্বাহী কর্তা টম হ্যারিসন।

এমন পরিস্থিতিতে বলয়ের আঁটুনি শক্ত না করে শিথিল করার ইসিবির সিদ্ধান্তে বেশ অবাকই হয়েছেন অনেকে। প্রখ্যাত ধারাভাষ্যকার হর্ষ ভোগলে আগেই জানিয়েছেন যে কড়াকড়ি না করলে আরও ক্রিকেটের সিরিজের মধ্যে করোনা আক্রান্ত হবে। তবে এই জৈব বলয়ের ঘেরাটোপে ক্রিকেটারদের মানসিক স্বাস্থ্যের দিকটা নিয়ে ভাবা হচ্ছে কি

আইপিএল হোক, অস্ট্রেলিয়ার চলতি ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ হোক বা দ্য হান্ড্রেড, একাধিক ক্রিকেটার জৈব বলয়ে ক্লান্তির কথা জানিয়ে সরে গিয়েছেন। সেই নিয়ে নানা প্রশ্ন উঠলেও ক্রিকেটারদের দিক থেকে হয়তোই তেমন কেউ বিষয়টা ভেবে দেখেছে। জৈব বলয়ে নাগাড়ে খেলা চালিয়ে যাওয়া যে ক্রিকেটারদের কতটা কষ্টের, তা সাফ জানিয়ে দিয়েই ইসিবির সিদ্ধান্তের পক্ষে সওয়াল করেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটার তাবরেজ শামসি।

শামসি নিজের সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টে লেখেন, ‘আমার মনে হয় না এই জিনিসগুলো আমাদের পরিবার, আমাদের ওপর এবং ক্রিকেটের বাইরে আমাদের জীবনযাপনের ওপর ঠিক কতটা প্রভাব ফেলে সেই বিষয়টা সকলে ঠিকমতো বুঝতে সক্ষম। কখনও কখনও তো মনে হয় আমরা খাঁচায় বন্দি কোন জন্তু। আমাদের তখনই খাঁচা থেকে বার করা হয় যখন আমাদের প্র্যাকটিস বা দর্শকদের মনোরঞ্জন করার জন্য ম্যাচ খেলতে হবে।’

বন্ধ করুন