বাংলা নিউজ > ময়দান > বয়সকে তুড়ি মেরে ৩০ পূরণ করার পর টেস্ট খেলার সেঞ্চুরি করে ইতিহাস অ্যান্ডারসনের
একের পর এক নজির গড়ে চলেছেন অ্যান্ডারসন। (AFP)

বয়সকে তুড়ি মেরে ৩০ পূরণ করার পর টেস্ট খেলার সেঞ্চুরি করে ইতিহাস অ্যান্ডারসনের

  • প্রথম ফাস্ট বোলার হিসাবে ৬৫০টি টেস্ট উইকেট নেওয়ার রেকর্ড ইতিমধ্যে করে ফেলেছেন জেমস অ্যান্ডারসন। ২০০৩ সালে অভিষেক হওয়ার পর থেকে এক বর্ণময় কেরিয়ারে ১৭১টি টেস্ট খেলে ফেলেছেন অ্যান্ডারসন।

বয়স প্রায় ৪০ ছুঁই ছুঁই, জাতীয় দলে তাঁর জায়গা নিয়েও উঠেছিল প্রশ্ন। তবে ইংল্যান্ড কিংবদন্তি প্রতিনিয়ত প্রমাণ করে চলেছেন কেন তিনি সর্বকালের অন্যতম সেরা বোলার। চলতি ইংল্যান্ড-নিউজিল্যান্ড সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টের চতুর্থ দিনে এক অনন্য নজির স্পর্শ করলেন অ্যান্ডারসন।

তুড়ি মেরে বয়সকে উড়িয়ে ৩০ পূরণ করার পর ১০০ টেস্ট খেলার নজির গড়ে ফেললেন জেমস অ্যান্ডারসন। এই নজির এর আগে রয়েছে একমাত্র ইংল্যান্ডের আর এক তারকা অ্যালেক স্টুয়ার্টের। তিনিও ৩০ বছর পূরণ করার পর টেস্ট খেলার সেঞ্চুরি করেছিলেন। মোট ১০৭টি টেস্ট ৩০ বছর হওয়ার পর খেলেছিলেন স্টুয়ার্ট। জেমস অ্যান্ডারসন দ্বিতীয় প্লেয়ার হিসেবে আবার ৩০ হওয়ার পর ১০০টি টেস্ট খেলে ফেললেন। সচিন তেন্ডুলকর এবং রাহুল দ্রাবিড় আবার ৩০ হওয়ার পর ৯৫টি করে টেস্ট খেলেছিলেন। স্টিভ ওয়া খেলেছিলেন ৯২টি টেস্ট।

তবে বোলারদের মধ্যে অ্যান্ডারসনই প্রথম, যিনি ৩০ পূর করার পর থেকে ১০০টি টেস্ট খেলার নজির গড়লেন। এর আগে কোর্টনি ওয়ালশ ও রঙ্গনা হেরাথ ৮১টি ম্যাচ খেলেছিলেন।

আরও পড়ুন: চা-বিরতির পর ৫ উইকেট হারিয়ে চাপে কিউয়িরা,ব্রিটিশদের সামনে ফের টেস্ট জয়ের হাতছানি

আরও পড়ুন: প্রথম ফাস্ট বোলার হিসাবে ৬৫০ টেস্ট উইকেট নিলেন অ্যান্ডারসন

এই টেস্টেই প্রথম ফাস্ট বোলার হিসাবে ৬৫০ টেস্ট উইকেট নেওয়ার রেকর্ড করেছেন জেমস অ্যান্ডারসন। ২০০৩ সালে অভিষেক হওয়ার পর থেকে এক বর্ণময় কেরিয়ারে ১৭১টি টেস্ট খেলে ফেলেছেন অ্যান্ডারসন।

তবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে যখন ইংল্যান্ড গিয়েছিল, তখন সেই দলে তাঁর জায়গা হয়নি। অনেকেই মনে করছিলেন, তাঁর কেরিয়ার হয়তো শেষ। কিন্তু নতুন অধিনায়ক বেন স্টোকস পুনরায় অ্যান্ডারসনকে ইংল্যান্ডের টেস্ট দলে ফিরিয়ে আনেন এবং নিউজিল্যান্ড সিরিজে দলে বাছাইও করেন। অ্যান্ডারসন দলের অধিনায়ককে হতাশ করেননি। সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট খেলা চলছে। ইতিমধ্যেই অ্যান্ডারসন ১০ উইকেট নিয়ে ফেলেছেন। এই বয়সেও ব্রিটিশ তারকার এমন ধারাবাহিকতায় মুগ্ধ সকলে।

বন্ধ করুন