বাড়ি > ময়দান > রান-আউটে শুরু, রান-আউটেই শেষ, ধোনির আন্তর্জাতিক কেরিয়ার মিশে যায় একই বিন্দুতে
বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে ধোনির রান-আউটের মুহূর্ত। ছবি- টুইটার।
বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে ধোনির রান-আউটের মুহূর্ত। ছবি- টুইটার।

রান-আউটে শুরু, রান-আউটেই শেষ, ধোনির আন্তর্জাতিক কেরিয়ার মিশে যায় একই বিন্দুতে

  • মাঝের ১৬ বছরে গড়েছেন অসংখ্য নজির।

রান-আউট দিয়ে শুরু করেছিলেন আন্তর্জাতিক কেরয়ার। শেষ করলেন সেই রান-আউটেই। তফাৎ হল এই যে, অভিষেক ম্যাচে আক্ষরিক অর্থেই শূন্য থেকে শুরু করেছলেন ধোনি। শেষ ম্যাচের আগে নিজের কেরিয়ারকে সাফল্যের উত্তুঙ্গ শিখরে নিয়ে যান মাহি।

২০০৪ সালের ২৩ ডিসেম্বর চট্টগ্রামে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ওয়ান ডে ম্যাচ দিয়ে আন্তর্জাতিক অভিষেক হয়েছিল মহেন্দ্র সিং ধোনির। সেই ম্যাচে ধোনি ১ বল খেলে শূন্য রানে সাজঘরে ফিরেছিলেন রান-আউট হয়ে।

২০১৯ সালের ১০ জুলাই ম্যাঞ্চেস্টারে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ৭২ বলে ৫০ রান করে আউট হন ধোনি। কাকতলীয়ভাবে এবারও রান-আউটের শিকার হন মাহি। বিশ্বকাপের এক বছর পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর ঘোষণা করলেও, এটিই ছিল জাতীয় দলের হয়ে ধোনির শেষ ম্যাচ।

সুতরাং, রান-আউট দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আত্মপ্রকাশ করেন ধোনি। কেরিয়ার শেষ করেন সেই রান-আউটেই। মাঝের ১৬ বছরের অসংখ্য রেকর্ড গড়লেও শুরু ও শেষে ধোনির কেরিয়ার মিশে যায় একই বিন্দুতে। কাকতলীয় হলেও মনে হওয়া স্বাভাবিক যে, প্রাক্তন ভারত অধিনায়কের কেরিয়ার বৃত্ত হয়ত এভাবেই সম্পূর্ণ হয়।

বন্ধ করুন