বাংলা নিউজ > ময়দান > Vitality Blast 2022: ৩৩ বলে ৯১ রান! IPL নিলামে KKR-র নেওয়া ওপেনার ঝড় তুললেন ভাইটিলিটি ব্লাস্টে
অ্যালেক্স হেলস। (ছবি সৌজন্যে, ফেসবুক @trentbridge)

Vitality Blast 2022: ৩৩ বলে ৯১ রান! IPL নিলামে KKR-র নেওয়া ওপেনার ঝড় তুললেন ভাইটিলিটি ব্লাস্টে

  • Vitality Blast 2022: রান তাড়া করতে নেমে বিধ্বংসী শুরু করেন নটিংহ্যামশায়ারের ওপেনার। যে খেলোয়াড়কে এবার আইপিএলের মেগা নিলামে দলে নিয়েছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স (কেকেআর)। পাঁচটি ছক্কা এবং ১২ টি চার মারেন তিনি।

পাঁচটি ছক্কা, ১২ টি চার। ভাইটালিটি ব্লাস্টে ডার্বিশায়ার ফ্যালকনসের বিরুদ্ধে এরকমই বিধ্বংসী ইনিংস খেললেন অ্যালেক্স হেলস। ৩৩ বলে হেলসের ৯১ রানের সৌজন্যে সাত উইকেটে সহজ ছিনিয়ে নিল নটিংহ্যামশায়ার। যে হেলসকে এবার আইপিএলের মেগা নিলামে দলে নিয়েছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স (কেকেআর)।

শুক্রবার ডার্বিতে টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ে সিদ্ধান্ত নেয় নটিংহ্যামশায়ার। শুরুটা দুর্দান্ত করেন ডার্বিশায়ারের দুই ওপেনার শান মাসুদ এবং লুইস রিকি। ৬.২ ওভারে ৬১ রান উঠে যায়। তারপর আউট হয়ে যান শান। কিছুক্ষণ পর প্যাভিলিয়নে ফিরে যান রিকি। তারপর ইনিংসের হাল ধরেন ওয়েন ম্যাডসেন এবং লুইস দু'প্লয়। ৩০ বলে ৪০ রান করেন ওয়েন। প্লয় করেন ৩৪ বলে ৫১ রান। কিন্তু তাঁরা আউট হওয়ার পরই ধাক্কা খায় ডার্বিশায়ার। পরপর উইকেট হারাতে থাকে। শেষপর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ১৭৮ রান তোলে ডার্বিশায়ার।

আরও পড়ুন: ব্যাট হাতে ৫২ রান, বল হাতে এক উইকেট, Vitality Blast সারের হয়ে দারুণ ছন্দে নারিন

সেই রান তাড়া করতে নেমে বিধ্বংসী শুরু করেন হেলস। ডার্বিতে হেলস ঝড়ের মধ্যে নটিংহ্যামশায়ারের অপর ওপেনার জো ক্লার্ক কার্যত দর্শক হয়েছিলেন। ৮.৩ ওভারে যখন প্রথম উইকেট হারায় নটিংহ্যামশায়ার, ততক্ষণে স্কোরবোর্ডে ১১৯ রান উঠে গিয়েছে। ২০ বলে ২৫ রানে আউট হয়ে যান ক্লার্ক। তা থেকেই স্পষ্ট যে হেলস কীরকম ছন্দে ছিলেন। তিনি যা ছন্দে ছিলেন, তাতে তাঁর শতরান স্রেফ সময়ের অপেক্ষা ছিল। কিন্তু ক্লার্ক আউট হওয়ার পরের ওভারেই আউট হয়ে যান হেলস। তবে তিনি যে ভিত্তি গড়ে দিয়ে যান, তার উপর দাঁড়িয়ে দু'ওভার বাকি থাকতেই সাত উইকেটে জিতে যায় নটিংহ্যামশায়ার।

উল্লেখ্য, এবার আইপিএলের মেগা নিলামে হেলসকে নিয়েছিল কেকেআর। কিন্তু আইপিএল শুরুর আগেই নাম তুলে নিয়েছিলেন হেলস। সেইসময় ইংল্যান্ডের তারকা ওপেনার বলেছিলেন, 'আসন্ন আইপিএল থেকে নাম তুলে নেওয়ার কঠোর সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমি। গত চার মাস বাড়ির বাইরে বায়ো বাবলে থাকতে হয়েছে এবং অস্ট্রেলিয়ায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ায় আরও একটি সুরক্ষিত পরিবেশে থাকতে ইচ্ছা করছে না আমার। জৈবপ্রযুক্তি বলয়ের ক্লান্তির কারণে আমার থেকে যেমন আশা করা হচ্ছে, সেই পর্যায়ে খেলতে না পারলে তা দল বা আমার পক্ষে সঠিক হবে না।'

বন্ধ করুন