বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ঘরের ভিতরে স্ত্রীর রক্তাক্ত দেহ, গাছে ঝুলছে স্বামী, বাঁকুড়ায় দম্পতির রহস্যমৃত্যু
দম্পতির রহস্যমৃত্যুর সাক্ষী থাকল বাঁকুড়া জেলা। (HT_PRINT)

ঘরের ভিতরে স্ত্রীর রক্তাক্ত দেহ, গাছে ঝুলছে স্বামী, বাঁকুড়ায় দম্পতির রহস্যমৃত্যু

  • সম্প্রতি একটা বড় অশান্তি হয়েছিল এই বাগদি দম্পতির মধ্যে। তবে তারপর এই বিষয়টি আর প্রকাশ্যে আসেনি। সেই ঘটনার সঙ্গে আজকের ঘটনার যোগ আছে কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এই ঘটনার পিছনে অন্য কোনও রহস্য রয়েছে কি না, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। খুনের সন্দেহও উড়িয়ে দিচ্ছেন না তদন্তকারীরা।

আবার দম্পতির রহস্যমৃত্যুর সাক্ষী থাকল বাঁকুড়া জেলা। স্ত্রীর রক্তাক্ত দেহ পড়ে থাকতে দেখা গেল ঘরের ভিতরে। আর ঘরের বাইরে গাছে স্বামীর ঝুলন্ত দেহ দেখতে পাওয়া গেল। এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ল রামশ্বরকুড় গ্রামে। বাঁকুড়ার পাত্রসায়র থানার রামেশ্বরকুড়ে গ্রাম থেকে এই দুটি দেহ উদ্ধার করল পুলিশ।

ঠিক কী ঘটেছে বাঁকুড়ায়?‌ স্থানীয় সূত্রে খবর, মৃত স্বামীর নাম অসিত বাগদি। তাঁর স্ত্রী রেণুকা বাগদি। এই বাগদি দম্পতির মৃতদেহ প্রকাশ্যে আসায় শোরগোল পড়ে গিয়েছে গ্রামে। বুধবার এই দম্পতির কোনও সাড়া না পেয়ে প্রতিবেশীরা ডাকাডাকি করেন। তারপর দরজায় ধাক্কা দিলে তা খুলে যায় এবং রেণুকার রক্তাক্ত দেহ প্রকাশ্যে আসে। তখন স্বামীর খোঁজ করেন গ্রামবাসীরা। একটু এগোতেই বাড়ির খানিকটা দূর থেকে উদ্ধার হয় অসিত বাগদির ঝুলন্ত দেহ। এরপর পুলিশে খবর দেওয়া হয়।

ঘটনাটি খুন না আত্মহত্যা?‌ পুলিশ সূত্রে খবর, এখনই গোটা ঘটনা বোঝা যাচ্ছে না। দুটি দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট এলে সব বোঝা যাবে। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে, সাংসারিক অশান্তি থেকেই নিজের স্ত্রীকে খুন করে স্বামী অসিত আত্মহত্যা করেছে। তবে গোটা বিষয়টি এখনও স্পষ্ট নয়। এই ঘটনায় প্রতিবেশীদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

আরও জানা গিয়েছে, সম্প্রতি একটা বড় অশান্তি হয়েছিল এই বাগদি দম্পতির মধ্যে। তবে তারপর এই বিষয়টি আর প্রকাশ্যে আসেনি। সেই ঘটনার সঙ্গে আজকের ঘটনার যোগ আছে কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এই ঘটনার পিছনে অন্য কোনও রহস্য রয়েছে কি না, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। খুনের সন্দেহও উড়িয়ে দিচ্ছেন না তদন্তকারীরা।

বন্ধ করুন