বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > টিকা নিতে ১৫-১৮ বয়সিদের কী নিয়ম মানতে হবে? কেন্দ্রে গিয়েও রেজিস্টার করা যাবে?
কো-উইন পোর্টালে রেজিস্ট্রেশন করা যাবে। সেইসঙ্গে টিকাকেন্দ্রেও রেজিস্ট্রেশনের সুযোগ পাবেন ১৫ থেকে ১৮ বছরের কিশোর-কিশোরীরা। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

টিকা নিতে ১৫-১৮ বয়সিদের কী নিয়ম মানতে হবে? কেন্দ্রে গিয়েও রেজিস্টার করা যাবে?

  • কী কী নিয়ম মানতে হবে?

কো-উইন পোর্টালে রেজিস্ট্রেশন করা যাবে। সেইসঙ্গে টিকাকেন্দ্রে গিয়েও রেজিস্ট্রেশনের সুযোগ পাবেন ১৫ থেকে ১৮ বছরের কিশোর-কিশোরীরা। শিশুদের করোনা টিকাকরণ নিয়ে নির্দেশিকা জারি করে এমনই জানাল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক। তবে কবে থেকে কো-উইন পোর্টালে রেজিস্টার করা যাবে, তা কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়নি।

কী কী নিয়ম মানতে হবে?

১) যাঁদের বয়স ১৫ বছর বা তার বেশি, তাঁরা কো-উইন পোর্টালে রেজিস্টার করতে পারবেন। অর্থাৎ যাঁরা ২০০৭ সাল বা তার আগে জন্মগ্রহণ করেছেন, তাঁরা কো-উইন পোর্টালের মাধ্যমে রেজিস্টার করে টিকা নিতে পারবেন বলে জানিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক।

২) তাঁরা নিজেরাই রেজিস্টার করতে পারবেন। কো-উইন পোর্টালে ইতিমধ্যে নথিভুক্ত আছে, এমন কারও অ্যাকাউন্ট থেকে টিকার স্লট বুক করতে পারবেন বলে কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়েছে। অথবা কেউ ফোন নম্বর দিয়ে কো-উইন পোর্টালে অ্যাকাউন্ট খুলে স্লট বুক করতে পারেন। সেই ফোন নম্বর দিয়ে যদি কো-উইন পোর্টালে আগে অ্যাকাউন্ট খোলা থাকে, তাহলে নতুন করে অ্যাকাউন্ট খোলা যাবে না। এমনিতে একটি অ্যাকাউন্ট থেকে একাধিক জনের স্লট বুক করা হয়।

৩) টিকাকেন্দ্রে গিয়েও তাঁরা রেজিস্টার করতে পারবেন। অর্থাৎ ওয়াক-ইন অ্যাপয়েন্টমেন্টও করা যাবে।

৪) ১৫ থেকে ১৮ বছরের যাঁরা টিকা নেবেন, তাঁদের শুধুমাত্র কোভ্যাক্সিন দেওয়া হবে।

৫) আগামী ৩ জানুয়ারি থেকে তাঁদের টিকাকরণ শুরু হবে।

দীর্ঘদিন ধরেই ভারতে শিশুদেরও করোনা টিকা প্রদানের দাবি উঠছিল। তারইমধ্যে গত শনিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী জানান, নয়া বছরের ৩ জানুয়ারি থেকে ১৫-১৮ বয়সিদের টিকাকরণ শুরু হবে। সেদিন তিনি বলেছিলেন, ‘১৫ বছর থেকে ১৮ বছরের মধ্যে যে শিশুরা আছে, তাদের জন্য দেশে শুরু হবে টিকাকরণ। ২০২২ সালের ৩ জানুয়ারি (সোমবার) থেকে শুরু হবে সেই কর্মসূচি। এই সিদ্ধান্তের ফলে করোনার বিরুদ্ধে দেশের লড়াই মজবুত হবে। স্কুল ও কলেজে যে বাচ্চারা যাচ্ছে, তাদের চিন্তা কম হবে এই সিদ্ধান্তের ফলে। তাদের বাবা এবং মায়েদের চিন্তাও কম হবে।’ উল্লেখ্য, সেদিনই ১২ থেকে ১৮ বয়সিদের শরীরে জরুরি ভিত্তিতে কোভ্যাক্সিন প্রয়োগের অনুমতি দেয় ড্রাগস কন্ট্রোলার জেনারেল অফ ইন্ডিয়া (ডিসিজিআই)।

বন্ধ করুন