বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > রক্ত দিয়ে রাজ্যভাগ রুখব, ক্ষমতা থাকলে বুকে বন্দুক ঠেকা: পালটা চ্যালেঞ্জ মমতার
মঙ্গলবার আলিপুরদুয়ারে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নিজস্ব চিত্র

রক্ত দিয়ে রাজ্যভাগ রুখব, ক্ষমতা থাকলে বুকে বন্দুক ঠেকা: পালটা চ্যালেঞ্জ মমতার

  • নাম না করে জীবন সিংহকে চ্যালেঞ্জ করে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘কিছু নেতা কাজ নেই কর্ম নেই, আমাকে ভয় দেখাচ্ছে, উত্তরবঙ্গ ভাগ না করলে আমাকে না কি মেরে দেবে। আমি বলি, তোমার ক্ষমতা থাকলে আমার বুকে বন্দুক ঠেকাও।

কেএলও সুপ্রিমো জীবন সিংহের হুঁশিয়ারির পর আলিপুরদুয়ারে সভা থেকে পালটা চ্যালেঞ্জ ছুড়লেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মঙ্গলবার আলিপুরদুয়ার প্যারেড গ্রাউন্ডের সভা থেকে বিজেপি উত্তরবঙ্গ ভাগের জিগির তুলছে বলে অভিযোগ করেন তিনি। সঙ্গে নাম না করে জীবন সিংহকে বলেন, ক্ষমতা থাকলে বুকে বন্দুক ঠেকা।

এদিন মমতা বলেন, ‘ভোটের আগে বলেছিল, গোর্খাল্যান্ড করব। ভোটের পর পালিয়েছে। আমরা কিছুতেই গোর্খাল্যান্ড করতে দেব না। আগে তো পাহাড়ের সঙ্গে তরাই – ডুয়ার্সের ঝগড়া লাগিয়ে দিয়েছিল’।

তাঁর অভিযোগ, ‘বিজেপির কেউ কেউ বলে আমরা উত্তরবঙ্গকে আলাদা করে দেব। আমি রক্ত দিতে তৈরি কিন্তু বাংলাকে ভাগ করতে দেব না’।

নাম না করে জীবন সিংহকে চ্যালেঞ্জ করে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘কিছু নেতা কাজ নেই কর্ম নেই, আমাকে ভয় দেখাচ্ছে, উত্তরবঙ্গ ভাগ না করলে আমাকে না কি মেরে দেবে। আমি বলি, তোমার ক্ষমতা থাকলে আমার বুকে বন্দুক ঠেকাও। এতবড় ক্ষমতা তোমাদের? আমি অনেক বন্দুক দেখে এসেছি। এসব বন্দুক টন্দুক আমায় দেখিও না। তোমাদের বন্দুক ভোঁতা করতে আমি জানি। বিজেপির প্রশ্রয়ে এসব হচ্ছে। যখনই নির্বাচন আসে বিজেপি ভাগাভাগির কথা বলে’।

এদিনের সভা থেকে ডুয়ার্সে উন্নয়নের ঢালাও প্রতিশ্রুতি দেন মমতা। বলেন, রাজনৈতিকভাবে তৃণমূলের কিছু ভুল হলেও তাদের সঙ্গেই যেন থাকে মানুষ। কারণ ভুল সংশোধন করতে পারে একমাত্র তৃণমূলই।

 

বন্ধ করুন