বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ঝড়খালিতে আগুনে ভস্মীভূত একাধিক দোকান, রাতের অন্ধকারে আগুন নিয়ে চাঞ্চল্য
আগুন ঘিরে চাঞ্চল্য।
আগুন ঘিরে চাঞ্চল্য।

ঝড়খালিতে আগুনে ভস্মীভূত একাধিক দোকান, রাতের অন্ধকারে আগুন নিয়ে চাঞ্চল্য

  • ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ঝড়খালি রাজা মোড় এলাকায়। এই ঘটনায় কান্নায় ভেঙে পড়েছেন দোকানিরা।

ফের ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড। আর তার জেরে ভস্মীভূত হয়ে গেল একাধিক দোকান। রাতের অন্ধকারে বিধ্বংসী আগুনে ভস্মীভূত হয়ে গেল তিনটি দোকান। ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ঝড়খালি রাজা মোড় এলাকায়। এই ঘটনায় কান্নায় ভেঙে পড়েছেন দোকানিরা। এই দোকান চালিয়ে সামান্য যা রোজগার হয় তা দিয়ে সংসার চালান তাঁরা। এবার সেটাও গেল।

দোল পূর্ণিমার আগে এই অগ্নিকাণ্ডে দিশেহারা দোকানির পরিবারগুলি। এই আগুন কেউ লাগিয়ে দিল কিনা তা নিয়েও সন্দেহ প্রকাশ করা হয়েছে। তবে ইলেকট্রিক শট সার্কিট থেকেই আগুন লেগেছে বলে অনুমান স্থানীয়দের। সেখানে কিছু দাহ্য বস্তু থাকায় আগুন ছড়িয়ে পড়তে বেশি সময় লাগেনি। সূত্রের খবর, এই তিনটি দোকানের মালিক তৃণমূল কংগ্রেস সমর্থক। তাই বিরোধী গোষ্ঠী বিজেপি এই কাজ করেছে। যাতে তাঁরা ভোটে খাটতে না পারে।

দোল পূর্ণিমার আগে এই অগ্নিকাণ্ডে দিশেহারা দোকানির পরিবারগুলি। এই আগুন কেউ লাগিয়ে দিল কিনা তা নিয়েও সন্দেহ প্রকাশ করা হয়েছে। তবে ইলেকট্রিক শট সার্কিট থেকেই আগুন লেগেছে বলে অনুমান স্থানীয়দের। সেখানে কিছু দাহ্য বস্তু থাকায় আগুন ছড়িয়ে পড়তে বেশি সময় লাগেনি। সূত্রের খবর, এই তিনটি দোকানের মালিক তৃণমূল কংগ্রেস সমর্থক। তাই বিরোধী গোষ্ঠী বিজেপি এই কাজ করেছে। যাতে তাঁরা ভোটে খাটতে না পারে।|#+|

এদিন পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে খবর, শনিবার রাত সাড়ে ১১টা নাগাদ আগুন লেগে যায় সন্তু সানা ও রণজিৎ সানা নামে দুই ব্যক্তির দোকানে। সঙ্গে সঙ্গে আগুন ছড়ায় আরও দু’‌একটি দোকানে। স্থানীয় মানুষজন রাতেই এসে আগুন নেভানোর কাজে হাত লাগায়। পরে পুলিশ এসে আগুন নেভানোর কাজে হাত লাগায়। ঘটনার তদন্ত করা হচ্ছে। কি করে আগুন লাগল?‌ তা নিয়ে জোর চর্চা শুরু হয়েছে।

বন্ধ করুন