বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > আরব সাগরের ঘূর্ণিঝড়ে কপাল পুড়তে পারে বাংলার, শুক্রবার থেকে বাড়বে গরম
আরব সাগরের ঘূর্ণিঝড়ে কপাল পুড়তে পারে বাংলার, শুক্রবার থেকে বাড়বে গরম। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
আরব সাগরের ঘূর্ণিঝড়ে কপাল পুড়তে পারে বাংলার, শুক্রবার থেকে বাড়বে গরম। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

আরব সাগরের ঘূর্ণিঝড়ে কপাল পুড়তে পারে বাংলার, শুক্রবার থেকে বাড়বে গরম

  • বৃহস্পতিবার আকাশ মেঘলা থাকতে পারে।

আরব সাগরে তৈরি হতে চলেছে একটি ঘূর্ণিঝড়। তার জেরে শুক্রবার থেকেই রাজ্যে উধাও হয়ে যেতে পারে স্বস্তি। বরং আগামিকাল থেকে রাজ্যের তাপমাত্রা বাড়তে পারে। শুষ্ক গরমের দাপটে সপ্তাহের শেষে কলকাতার পারদ ছুঁয়ে ফেলতে পারে ৩৭-৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। অর্থাৎ জ্যৈষ্ঠের শুরুতেই বাংলায় আবারও ফিরে আসতে পারে অস্বস্তিকর গরম। 

আলিপুর আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, একটি নিম্নচাপ অক্ষরেখা এবং বজ্রগর্ভ মেঘের কারণে গত মঙ্গলবার থেকে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বৃষ্টি হয়েছে। সঙ্গে ঝড়ের দাপট দেখা গিয়েছিল। বুধবার সেভাবে বৃষ্টি না হলেও আকাশের মুখ ভার ছিল। তবে সন্ধ্যার পর দক্ষিণবঙ্গের কয়েকটি জেলায় বৃষ্টি হয়েছে। উত্তরবঙ্গেও হয়েছে বর্ষণ। তারইমধ্যে নিম্নচাপ অক্ষরেখা এখনও সক্রিয় থাকায় বৃহস্পতিবার একইরকমভাবে আকাশ মেঘলা থাকতে পারে। বিকেল-সন্ধ্যার দিকে ঝড়বৃষ্টি হতে পারে। তারপর শুক্রবার থেকে বাড়তে পারে তাপমাত্রা। উঠবে চড়া রোদ।

কিন্তু আচমকা আবারও গরম বাড়বে কেন? আবহাওয়া অফিসের তরফে জানানো হয়েছে, আরব সাগরে একটি ঘূর্ণিঝড় জন্ম নিচ্ছে। সেটির প্রভাবেই বাংলার পরিমণ্ডলে ঢুকবে শুষ্ক বাতাস। তার ফলে বাড়বে তাপমাত্রা। এমনিতে আগামিকাল সকাল নাগাদ দক্ষিণ-পূর্ব আরব সাগরে একটি নিম্নচাপ অক্ষরেখা তৈরি হবে। শুক্রবারের মধ্যে লাক্ষাদ্বীপ এবং পার্শ্ববর্তী এলাকায় সেটি নিম্নচাপে পরিণত হতে পারে। তারপর তা ক্রমশ উত্তর-পশ্চিম দিকে এগিয়ে যাবে। আগামী ১৬ মে নাগাদ পূর্ব-মধ্য আরব সাগরের উপর সেটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে। কিছুটা শক্তি বাড়িয়ে আরও উত্তর-পশ্চিম দিকে চলে যেতে পারে সেই ঘূর্ণিঝড়। সম্ভাব্য ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে সপ্তাহান্তে লাক্ষাদ্বীপ, কেরালা এবং কর্নাটকের উপকূলে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে। মৎস্যজীবীদের সমুদ্র যেতে নিষেধ করা হয়েছে।

বন্ধ করুন