বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > পারিবারিক অশান্তির জেরে স্বামী-মেয়েকে কুপিয়ে আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা মহিলার
স্বামী ও মেয়েকে কুপিয়ে খুন করার চেষ্টা। প্রতীকী ছবি
স্বামী ও মেয়েকে কুপিয়ে খুন করার চেষ্টা। প্রতীকী ছবি

পারিবারিক অশান্তির জেরে স্বামী-মেয়েকে কুপিয়ে আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা মহিলার

  • খবর পাওয়া মাত্রই বাড়ির দরজা ভেঙে রক্তাক্ত অবস্থায় তিনজনকে উদ্ধার করে পুলিশ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। তিনজনেই আশঙ্কাজনক অবস্থায় চুঁচুড়া ইমামবাড়া সদর হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে।

স্বামী ও মেয়েকে কুপিয়ে আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা করলেন মহিলা। পান্ডুয়া থানা এলাকায় এই ঘটনা ঘটেছে। খবর পাওয়া মাত্রই বাড়ির দরজা ভেঙে রক্তাক্ত অবস্থায় তিনজনকে উদ্ধার করে পুলিশ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। তিনজনেই আশঙ্কাজনক অবস্থায় চুঁচুড়া ইমামবাড়া সদর হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। এরমধ্যে বাবা বিকাশ ঘোষ এবং মেয়ে সুলগ্না ঘোষের অবস্থা খুবই গুরুতর বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

কি কারণে এই ঘটনা ঘটল সে বিষয়ে এখনও নিশ্চিত নয় পুলিশ। তবে স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, দীর্ঘ লকডাউনে আর্থিক অবস্থা খারাপ হয়ে যাওয়ার ফলে মাঝেমধ্যেই তাদের পরিবারে অশান্তি লেগে থাকত। আর তাকে কেন্দ্র করে চিৎকার চেঁচামেচির আওয়াজ প্রায়ই তাদের বাড়ি থেকে পাওয়া যেত। নিত্যদিন অশান্তি তাদের সঙ্গী হয়ে উঠেছিল। এদিন তাদের মধ্যে ঝামেলা চরমে পৌঁছায়। নিজেকে নিয়ন্ত্রণ করতে না পেরে রান্নাঘরে থাকা বটি এনে তা দিয়ে স্বামী এবং মেয়েকে এলোপাথাড়ি কোপ মারতে শুরু করে তন্দ্রা ঘোষ নামে ওই মহিলা। নিজেও আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। এদিন বেশি করে চিৎকার চেঁচামেচির আওয়াজ পাওয়ায় স্থানীয়রা তাদের থামাতে গিয়ে দেখেন ঘরের দরজা বন্ধ রয়েছে। শেষে তারা ঘরের দরজা ভেঙে দেখেন তিনজনই মাটিতে পরে রয়েছে। রক্তে ভরে গেছে বাড়ি। পরে পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। বর্তমানে ওই হাসপাতালে তিনজনের চিকিৎসা চলছে।

বন্ধ করুন