বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > By-Election: মানিকতলা বিধানসভা উপনির্বাচনের বিজ্ঞপ্তি শীঘ্রই, কে হচ্ছেন তৃণমূলের প্রার্থী?
সাধন পাণ্ডে

By-Election: মানিকতলা বিধানসভা উপনির্বাচনের বিজ্ঞপ্তি শীঘ্রই, কে হচ্ছেন তৃণমূলের প্রার্থী?

  • ২০১১ সাল থেকে মানিকতলার বিধায়ক ছিলেন সাধন পাণ্ডে৷ তার বড়তলা কেন্দ্রের বিধায়ক ছিলেন তিনি৷ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্ত্রিসভার ক্রেতা সুরক্ষা দফতরের মন্ত্রী হন৷ গত ২০ ফেব্রুয়ারি মুম্বইয়ের হাসপাতালে মারা যান মন্ত্রী৷ ফুসফুসের সংক্রমণ নিয়ে প্রথমে কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন৷

আর কয়েকদিনের মধ্যে মানিকতলা বিধানসভা কেন্দ্রের উপনির্বাচনের বিজ্ঞপ্তি জারি করবে নির্বাচন কমিশন৷ তৃণমূল কংগ্রেস বিধায়ক সাধন পাণ্ডে প্রয়াত হওয়ায় বিধানসভা কেন্দ্রটি খালি হয়। ২০২২ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি মারা যান ক্রেতা সুরক্ষামন্ত্রী সাধন পাণ্ডে। নিয়ম অনুযায়ী, খালি থাকা বিধানসভা আসন ৬ মাসের মধ্যে উপনির্বাচন করতে হয়৷ ‌

কবে মেয়াদ শেষ হচ্ছে?‌ নির্বাচন কমিশন সূত্রে খবর, এই বিধানসভা কেন্দ্রের মেয়াদ শেষ হচ্ছে ২০ অগস্ট৷ তার আগেই উপনির্বাচনের পুরো প্রক্রিয়া সেরে ফেলতে হবে৷ নির্বাচনের ন্যূনতম ২১ দিন এবং সর্বাধিক ৪২ দিন আগে বিজ্ঞপ্তি জারি করতে হয়৷ তাই আগামী দু’‌চারদিনের মধ্যে বিজ্ঞপ্তি জারির সম্ভাবনা রয়েছে। তবে নির্দিষ্ট তারিখ এখনও জানা যায়নি।

উল্লেখ্য, ২০১১ সাল থেকে মানিকতলার বিধায়ক ছিলেন সাধন পাণ্ডে৷ তার বড়তলা কেন্দ্রের বিধায়ক ছিলেন তিনি৷ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্ত্রিসভার ক্রেতা সুরক্ষা দফতরের মন্ত্রী হন৷ গত ২০ ফেব্রুয়ারি মুম্বইয়ের হাসপাতালে মারা যান মন্ত্রী৷ ফুসফুসের সংক্রমণ নিয়ে প্রথমে কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন৷ পরে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় মুম্বইয়ের হাসপাতালে৷

আর কী জানা যাচ্ছে?‌ এখন তাঁর মেয়ে শ্রেয়া পাণ্ডেকে এই কেন্দ্র থেকে টিকিট দেওয়া হতে পারে বলে সূত্রের খবর। গত কয়েক বছর ধরে সাধন পাণ্ডের বিভিন্ন রাজনৈতিক কর্মসূচিতে দেখা যেত তাঁর মেয়ে শ্রেয়া পাণ্ডেকে৷ একুশের বিধানসভা নির্বাচনের যাবতীয় কাজ সাধন পাণ্ডের হয়ে তিনিই সামলেছেন৷ সাধন পাণ্ডের অনুরাগীরা তাই শ্রেয়াকেই ওই কেন্দ্রে প্রার্থী করার দাবি তুলেছেন৷

বন্ধ করুন