বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > ছাত্র - যুবদের পাশে আছেন মমতা, বোঝাতে বলিউডি ভাষায় পোস্টার প্রকাশ করল তৃণমূল
তৃণমূলের প্রকাশ করা ব্যানার
তৃণমূলের প্রকাশ করা ব্যানার

ছাত্র - যুবদের পাশে আছেন মমতা, বোঝাতে বলিউডি ভাষায় পোস্টার প্রকাশ করল তৃণমূল

  • গত ২১ জুলাই তৃণমূলের ভার্চুয়াল সভার একেবারে শেষে দলের কর্মীদের মনোবল চাঙ্গা করতে মমতা বলেছিলেন ‘ম্যায় হুঁ না’। এবার সেই শব্দবন্ধকেই সরাসরি প্রচারে ব্যবহার করল তৃণমূল।

বিধানসভা নির্বাচনের আগে ছাত্র-যুবদের কাছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে মসিহা হিসাবে তুলে ধরতে ফিল্মি কায়দায় প্রচার শুরু করল তৃণমূল। করোনাকালে পরীক্ষার আয়োজন সংক্রান্ত বিষয়ে তৃণমূলনেত্রী যে তাদের পাশে রয়েছেন তা বোঝাতে এবার শাহরুখ খানের ছবির নাম ব্যবহার করল পশ্চিমবঙ্গের শাসকদল। বৃহস্পতিবার রাতে তৃণমূলের টুইটার হ্যান্ডেলে প্রকাশিত একটি ব্যানারে দেখা যাচ্ছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। আর তার ওপরে রোমান হরফে লেখা ‘ম্যায় হুঁ না’।

গত ২১ জুলাই তৃণমূলের ভার্চুয়াল সভার একেবারে শেষে দলের কর্মীদের মনোবল চাঙ্গা করতে মমতা বলেছিলেন ‘ম্যায় হুঁ না’। এবার সেই শব্দবন্ধকেই সরাসরি প্রচারে ব্যবহার করল তৃণমূল। সঙ্গে ওই টুইটে লেখা হয়েছে, অস্থির এই সময়ে বিজেপি ছাত্রদের আরও বিপদের মুখে ঠেলে দিচ্ছে। জ্বলন্ত এই সমস্যার মুখোমুখি হতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সময়মতো উদ্যোগী হয়ে ছাত্রদের নিরাপত্তা এগিয়ে এসেছেন। সত্যিই তিনি সবার নেত্রী!’

বলে রাখি, JEE Main ও NEET পরীক্ষার আয়োজন নিয়ে গত কয়েক সপ্তাহ ধরেই রাজ্য সরকারগুলির সঙ্গে কেন্দ্রের বিরোধ চলছে। আদালতের নির্দেশে আগামী মাসে পরীক্ষার আয়োজন করতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার। ওদিকে পশ্চিমবঙ্গসহ একাধিক রাজ্যের দাবি, পরীক্ষার আয়োজন হলে করোনা সংক্রমণ যেমন ছড়িয়ে পড়বে তেমনই গণপরিবহন বন্ধ থাকায় পরীক্ষাকেন্দ্রে পৌঁছতে বিপদে পড়বেন পড়ুয়ারা। এই নিয়ে শুক্রবারই সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছে ৬টি রাজ্য। 

রাজনৈতিক মহলের মতে, বরাবরই যুবাদের নিয়ে রাজনীতি করতে পছন্দ করেন মমতা। যুবনেত্রী হিসাবেই রাজনীতিতে তাঁর উত্থান। আর সহজ ভাষায় কথা বলে দ্রুত মানুষের কাছে কী করে পৌঁছতে হয় তাতে দেশের যে কোনও রাজনীতিবিদের শিক্ষক হতে পারেন তিনি। তৃণমূলের এই ব্যানার তারই একটি উদাহরণ।

 

বন্ধ করুন