বাড়ি > কর্মখালি > CBSE Board Exam 2020: বাড়ির জেলা থেকেই CBSE বোর্ড পরীক্ষা দেওয়া যাবে : কেন্দ্র
ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

CBSE Board Exam 2020: বাড়ির জেলা থেকেই CBSE বোর্ড পরীক্ষা দেওয়া যাবে : কেন্দ্র

  • কীভাবে পড়ুয়ারা নিজেদের জেলা পরীক্ষাকেন্দ্রের জন্য আবেদন করতে পারবেন, তাও জানিয়েছেন পোখরিয়াল।

করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে অনেক পরীক্ষার্থী নিজেদের বাড়ি ফিরে গিয়েছেন। তাঁরা নিজেদের জেলা থেকেই সিবিএসই বোর্ড পরীক্ষায় বসতে পারবেন। এমনটা জানালেন কেন্দ্রীয় মানবসম্পদ ও উন্নয়নমন্ত্রী রমেশ পোখরিয়াল 'নিশাঙ্ক'।

করোনাভাইরাস পরিস্থিতির জন্য মাঝপথেই সিবিএসই দশম ও দ্বাদশ শ্রেণির বোর্ড পরীক্ষা স্থগিত হয়ে গিয়েছিল। তারপর মূলত হস্টেলে থাকা পড়ুয়া বাড়ি ফিরে যান। এরইমধ্যে আগামী ১ জুলাই থেকে বাকি থাকা পরীক্ষা হবে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র। তার জেরে সমস্যায় পড়েন বাড়ি ফিরে যাওয়া পড়ুয়ারা। পরীক্ষার জন্য লকডাউনের মধ্যে ছেলেমেয়েরা কীভাবে স্কুলে ফিরবে, তা নিয়ে উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন অভিভাবকরাও। 

এই পরিস্থিতিতে আজ, বুধবার ভিডিয়ো বার্তায় পোখরিয়াল জানান, করোনা সংকটের সময় হস্টেলে থাকা পড়ুয়ারা নৈনিতাল থেকে তামিলনাড়ুতে গিয়েছেন। তামিলনাড়ু থেকে পঞ্জাবে ফিরেছেন অনেক পড়ুয়া। একইভাবে অনেকে পঞ্জাব থেকে তামিলনাড়ুতে ফিরেছেন। ফলে নয়া নির্ঘণ্ট অনুযায়ী পরীক্ষা দিতে কীভাবে হাজার হাজার কিলোমিটার পথ পেরিয়ে নিজেদের স্কুল-হস্টেলে পৌঁছাবেন, তা নিয়ে পড়ুয়াদের মনে উদ্বেগ তৈরি হয়েছে। 

পড়ুয়াদের আশ্বস্ত করে পোখরিয়াল বলেন, ‘Covid-১৯ সংকটের কারণে হাজার হাজার পরীক্ষার্থী নিজেদের বাড়ি ফিরে গিয়েছেন। এই পরিস্থিতিতে বোর্ড পরীক্ষায় বসতে চলা পড়ুয়াদের অসুবিধার কথা মাথায় রেখে সিবিএসই সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে ওই পড়ুয়ারা নিজের বাড়ির জেলা থেকেই বোর্ড পরীক্ষা দিতে পারবেন।’

কীভাবে পড়ুয়ারা নিজেদের জেলা পরীক্ষাকেন্দ্রের জন্য আবেদন করতে পারবেন, তাও জানিয়েছেন পোখরিয়াল। তিনি জানান, পড়ুয়াদের নিজেদের স্কুলের সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে। জানাতে হবে, তাঁরা কোন জেলায় আছেন এবং সেই জেলায় তাঁরা পরীক্ষা দিতে চান। স্কুলের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখারও আর্জি জানান মন্ত্রী। তাঁর আশ্বাস, জুনের প্রথম সপ্তাহের মধ্যেই নিজেদের বাড়ির জেলার কোথায় পরীক্ষাকেন্দ্র পড়েছে, তা জানিয়ে দেবে সিবিএসই। মন্ত্রীর কথায়, ‘পড়ুয়াদের পছন্দমতো জেলায় পরীক্ষার বন্দোবস্ত করার সবরকমের চেষ্টা করছে সিবিএসই বোর্ড।’

বন্ধ করুন