বাংলা নিউজ > ভোটের লড়াই > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > জাকির হোসেনের ওপর হামলায় তৃণমূলকেই দুষল কংগ্রেস-BJP, আরোগ্য কামনা রেলমন্ত্রীর
হামলার ঠিক আগের মুহূর্তে রাজ্যের প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেন।
হামলার ঠিক আগের মুহূর্তে রাজ্যের প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেন।

জাকির হোসেনের ওপর হামলায় তৃণমূলকেই দুষল কংগ্রেস-BJP, আরোগ্য কামনা রেলমন্ত্রীর

  • বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘রাজ্যে মন্ত্রী আক্রান্ত হচ্ছেন এটা দুর্ভাগ্যের ব্যাপার। রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা কোথায় গিয়েছে এতে বোঝা যায়। আগে শুধু বিরোধীদের ওপর আক্রমণ হতো। এখন শাসকদলের মন্ত্রীও ছাড় পাচ্ছেন না।

রাজ্যের প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেনের ওপর হামলায় তৃণমূলকেই কাঠগড়ায় তুললেন ২ বিরোধী দল কংগ্রেস ও বিজেপির নেতৃত্ব। রেল স্টেশনে হামলা হওয়ায় জাকির সাহেবের দ্রুত আরোগ্য কামনা করে টুইট করলেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল। বুধবার রাতে মুর্শিদাবাদের নিমতিতা স্টেশনের ২ নম্বর প্ল্যাটফর্মে জাকির সাহেবকে লক্ষ্য করে বোমা ছোড়ে দুষ্কৃতীরা। বোমার আঘাতে গুরুতর আহত হয়েছেন তিনি। তাঁকে প্রথমে জঙ্গিপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গভীর রাতে তাঁকে কলকাতায় স্থানান্তরের পরামর্শ দেন চিকিৎসকরা। 

এদিন জাকির হোসেনের ওপর হামলা প্রসঙ্গে বহরমপুরের সাংসদ তথা প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরী বলেন, ‘তৃণমূলের লুঠতরাজের রাজনীতিকে সমর্থন করতেন না জাকির হোসেন। গরুপাচারের বিরোধী ছিলেন তিনি। এমনকী পুলিশও তাঁকে পছন্দ করতো না। তাই যারা তৃণমূল ভাঙিয়ে খেত তাদের নিশানা হয়েছেন তিনি। সততার সঙ্গে রাজনীতি করার জন্যই হামলার মুখে পড়তে হল তাঁকে। যে রাজ্যে মন্ত্রীর ওপর হামলা হয় সেখানে আইনশৃঙ্খলার কী অবস্থা তা সহজেই অনুমান করা যায়’। 

বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘রাজ্যে মন্ত্রী আক্রান্ত হচ্ছেন এটা দুর্ভাগ্যের ব্যাপার। রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা কোথায় গিয়েছে এতে বোঝা যায়। আগে শুধু বিরোধীদের ওপর আক্রমণ হতো। এখন শাসকদলের মন্ত্রীও ছাড় পাচ্ছেন না। এর আগে তৃণমূলের চেয়ারম্যান – বিধায়ক মারা গিয়েছেন। আইনশৃঙ্খলার এই অবস্থা হলে নির্বাচন কী করে হবে মুখ্যমন্ত্রী তথা পুলিশমন্ত্রীর তা ভাবা উচিত’।

রাতে জাকির সাহেবের আরোগ্য কামনা করে রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল টুইটে লেখেন, ‘নিমতিতা স্টেশনে ভয়াবহ বোমা হামলার আমি নিন্দা করছি। আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করি।’

ওদিকে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় বুধবার গভীর রাতে জাকির হোসেনকে কলকাতায় স্থানান্তরের পরামর্শ দেন জঙ্গিপুর হাসপাতালের চিকিৎসকরা। রাতেই মন্ত্রীকে কলকাতায় আনা হচ্ছে। 

 

বন্ধ করুন