বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > আর্থিক সমস্যা, ছবি নেই হাতে, যশ চোপড়ার অফিসে কাজ চাইতে গিয়েছিলেন অমিতাভ বচ্চন!
অমিতাভ বচ্চন
অমিতাভ বচ্চন

আর্থিক সমস্যা, ছবি নেই হাতে, যশ চোপড়ার অফিসে কাজ চাইতে গিয়েছিলেন অমিতাভ বচ্চন!

  • সে সময় বোস্টন থেকে লেখাপড়া ছেড়ে দেশে ফিরে আসতেও বাধ্য হয়েছিলেন অভিষেক বচ্চন। এরপরেই দুটো ব্যাক টু ব্যাক প্রোজেক্ট ঘুরিয়ে দেয় অমিতাভের ভাগ্যের চাকা।  

জীবনের ওঠাপড়া নিয়ে বরাবরই অকপট অভিষেক বচ্চন। নিজের কেরিয়ার, পারিবারিক সমস্যা—কোনও কিছু নিয়েই রাখঢাক করেন না। এবার অভিষেক বচ্চনকে কথা বলতে শোনা গেল ১৯৯০ সালে বচ্চন পরিবার যখন আর্থিক মন্দার মধ্যে দিয়ে যাচ্ছিল সেই সময় নিয়ে। সময়টা এখনও স্মৃতিতে উজ্জ্বল বলেই জানান অভিষেক। বলেন, সেই সময় পড়াশোনা ছেড়ে দেশে ফিরে আসতে বাধ্য হই, কেননা ‘আমরা খুব খারাপ সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছিলাম’।

সম্প্রতি ইউটিউবার রণবীর আল্লহাবাদিয়াকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে অমিতাভ-পুত্র জানিয়েছেন, ‘তখন আমি বোস্টন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করছিলাম। পড়া মাঝপথে রেখেই আমাকে ফিরে আসতে হয়। তখন আমরা আর্থিক সমস্যার মধ্যে দিয়ে যাচ্ছিলাম। বাবা তখন নতুন ব্যবসা শুরু করেছিল, এবিসিএল।’

 অভিষেক আরও বলেন, ‘বাবা-র আর্থিক সমস্যা দূর করার কোনও যোগ্যতাই তখন আমার ছিল না। শুধু মনে হয়েছিল, এরকম একটা সময়ে আমার উচিত বাবার পাশে থাকা। তাই ফিরে এসেছিলাম। বাবার কোম্পানিতে প্রোডাকশন বয় হিসেবে কাজ করতাম।’

অভিষেক জানান, একদিন রাতে তিনি পড়াশোনা করছেন তখন অমিতাভ তাঁকে জানান, তাঁর ব্যবসা ভালো চলছে না। ফের অভিনয়ে ফিরতে চান তিনি। এরপর সকালে উঠে যশ চোপড়ার অফিসে কাজ চাইতে যান অমিতাভ। যশ চোপড়াকে গিয়ে বলেন, দেখ আমাকে কেউ অভিনয়ে নিতে চাইছে না। আমার ছবিও ভালো চলছে না। আমার জন্য কী কোনও কাজ হবে? 

এরপরেই অমিতাভ অভিনয় করেন ‘মহব্বতেঁ’ ছবিতে। সেই সময়তেই শুরু হয় অমিতাভের জনপ্রিয় টিভি শো ‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’। এই দুই প্রোজেক্টই ভাগ্য ফেরায় বচ্চন পরিবারের।   

বন্ধ করুন