বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > চিনা জলসীমায় আটকে পড়া ১৬ নাবিককে দেশে ফেরাতে চিনের সঙ্গে আলোচনায় ভারত
চিন-অস্ট্রেলিয়া বাণিজ্য সম্পর্কের অবনতির জেরেই দুটি জাহাজকে বন্দরে ভিড়বার অনুমোদন দেওয়া হয়নি।
চিন-অস্ট্রেলিয়া বাণিজ্য সম্পর্কের অবনতির জেরেই দুটি জাহাজকে বন্দরে ভিড়বার অনুমোদন দেওয়া হয়নি।

চিনা জলসীমায় আটকে পড়া ১৬ নাবিককে দেশে ফেরাতে চিনের সঙ্গে আলোচনায় ভারত

  • ৪ মাস ধরে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া ১৬ জন ভারতীয় নাগরিককে ফিরিয়ে আনার প্রক্রিয়া চূড়ান্ত করতে চিনা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা চলেছে ভারতের।

চিনের জলসীমায় গত ৪ মাস ধরে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া ১৬ জন ভারতীয় নাগরিককে ফিরিয়ে আনার প্রক্রিয়া চূড়ান্ত করতে চিনা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা চলেছে ভারতের। বৃহস্পতিবার এই তথ্য প্রকাশ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। 

গত সপ্তাহে জাপানের বন্দরে নাবিক পরিবর্তন প্রক্রিয়া নাকচ হওয়ায় সাত মাস যাবৎ চিনা জলসীমায় বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া আরও ২৩ জন ভারতীয় নাবিককে দেশে ফেরার পথ ধরেছেন বলে জানা গিয়েছে। 

এই ২৯ জন ভারতীয় নাবিক এমভি জগ আনন্দ এবং এমভি আনাস্তাসিয়া জাহাজে কর্মরত ছিলেন। ওই দুই জাহাজ অস্ট্রেলিয়া থেকে কয়লা বয়ে নিয়ে চিনা বন্দরে খালাস করার কাজে যুক্ত ছিল। মনে করা হচ্ছে, চিন-অস্ট্রেলিয়া বাণিজ্য সম্পর্কের অবনতির জেরেই জাহাজ দুটিকে বন্দরে ভিড়বার অনুমোদন দেওয়া হয়নি।

এমভি জগ আনন্দ জাহাজের মালিক সংস্থা গ্রেট ইস্টার্ন শিপিং কোম্পানি জাপানের চিবা বন্দরে নাবিক পরিবর্তন করার সিদ্ধান্ত নেয়। সেখানেই ২৩ ভারতীয় নাবিককে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেওয়ার পরিকল্পনা করে মালিক সংস্থা, জানিয়েছেন বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র অনুরাগ শ্রীবাস্তব। টোকিও হয়ে তাঁদের দেশে ফেরার কথা ছিল।

এমভি আনাস্তাসিয়া জাহাজের আটকে পড়া ভারতীয় নাবিকদের উপরে নজর রাখা হয়েছে এবং তাঁদের দেশে ফেরাতে চিনা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা চলেছে বলে জানিয়েছে মন্ত্রক।

এমভি জগ আনন্দ চিনের হেবেই প্রদেশের জিংতাং বন্দরের কাছে নোঙর ফেলে রয়েছে এবং এমভি আনাস্তাসিয়া জাহাজটি কাওফেইডিয়ান বন্দরের কাছে গত ২০ সেপ্টেম্বর থেকে নোঙর করেছে। 

বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া ভারতীয় নাবিকদের দেশে ফেরাতে বেইজিংয়ের ভারতীয় মিশন ও বিদেশ মন্ত্রক চিনের সঙ্গে অবিরত কথাচালিয়ে যাচ্ছে।

বন্ধ করুন