বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Narendra Modi Fake Picture: ‘নিকনের ক্যামেরায় ক্যাননের কভার’,মোদীকে ট্রোল করতে ভুয়ো ছবি পোস্ট তৃণমূল সাংসদের
নরেন্দ্র মোদী (ছবি - টুইটার)

Narendra Modi Fake Picture: ‘নিকনের ক্যামেরায় ক্যাননের কভার’,মোদীকে ট্রোল করতে ভুয়ো ছবি পোস্ট তৃণমূল সাংসদের

  • ক্যামেরা হাতে মোদীর এক ভুয়ো ছবি পোস্ট করে নিজেই ট্রোল হলেন তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্যসভার সাংসদ। পরে তিনি সেই ছবিটি টুইটার থেকে ডিলিট করে দেন।  

শনিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর জন্মদিন ছিল। সেই উপলক্ষে তিনি গতকাল নামিবিয়া থেকে আসা ৮টি চিতাকে মধ্যপ্রদেশের অভয়ারণ্যে খাঁচা মুক্ত করেন। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর পরনে গতকাল ছিল সাফারি টুপি, ভেস্ট এবং সানগ্লাস। তাঁর হাতে ছিল নিকনের একটি ক্যামেরা। কুনো জাতীয় উদ্যানে চিতাদের মুক্ত করার পর সেই ক্যামেরা দিয়েই ছবি তোলেন তিনি। সেই মুহূর্তের একটি ভুয়ো ছবি পোস্ট করে প্রধানমন্ত্রীকে ট্রোল করতে গিয়ে নিজেই ট্রোল হলেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ জহর সরকার।

তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ মোদীর ভুয়ো ছবি পোস্ট করার পরই বিজেপির তরফে সেই ছবি নিয়ে আপত্তি তোলা হয়। পরে ‘ফ্যাক্ট চেক’ করে দাবি করা হয়, প্রধানমন্ত্রীর হাতে ছিল নিকনের ক্যামেরা তাতে ক্যাননের কভার লাগানো ছবিতে। উল্লেখ্য, গতকাল জহর সরকার মোদীর একটি ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লেখেন, ‘সমস্ত পরিসংখ্যানের ধামাচাপা দিয়ে রাখা এক জিনিস, কিন্তু ক্যামেরার লেন্সে কভার দিয়ে বন্ধ করে ছবি তোলা নিছক দূরদৃষ্টি।’ এরপরই বিজেপির তরফে পালটা ‘ট্রোল’ করা হয় জহর সরকারকে। ময়দানে নামেন খোদ রাজ্য সভাপতি তথা সাংসদ সুকান্ত মজুমদার।

এরপরই বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার টুইট করে লেখেন, ‘তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্যসভার সাংসদ ক্যানন কভার দেওয়া নিকন ক্যামেরার একটি এডিট করা ছবি পোস্ট করছেন৷ এটা অপপ্রচার ছড়ানোর অপচেষ্টা। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়... ভালো কাউকে নিয়োগ করুন। যাঁর অন্তত সাধারণ জ্ঞান আছে।’ পরে নিজের ভুল বুঝতে পেরে জহর সরকার তাঁর পোস্ট করা মোদীর ছবি ডিলিট করে দেন।

বন্ধ করুন