বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > NSAP Pension: মাসিক পেনশন ২০০ থেকে বেড়ে হয় ৩০০! এই দিয়েই চলে তাঁদের সংসার

NSAP Pension: মাসিক পেনশন ২০০ থেকে বেড়ে হয় ৩০০! এই দিয়েই চলে তাঁদের সংসার

ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে ব্লুমবার্গ

সরকার সামাজিক সুরক্ষা প্রকল্পের অধীনে দরিদ্র প্রবীণ নাগরিক, স্বামীহারা মহিলা এবং বিশেষ ভাবে সক্ষম নাগরিকদের পেনশন দিয়ে থাকে সরকার। এই প্রকল্পের অধীনে থাকা পেনশনভোগীদের আবেদন, কিছুটা টাকা বাড়িয়ে দিক সরকার।

দেশের বহু গরিবকেই পেনশন দেয় সরকার। তবে সেই সরকারি পেনশনের পরিমাণ জানেন? সম্প্রতি তথ্য জানার অধিকার আইনে এক প্রশ্নের জবাবে জানা গিয়েছে, এই পেনশনের পরিমাণ মাত্র ৩০০ টাকা। ২০১২ সালের আগে এই পেনশনের পরিমাণ ছিল ২০০ টাকা। সেই পেনশনের পরিমাণ ১০০ টাকা বেড়ে ৩০০ টাকা হয়েছিল। এই পরিমাণ টাকা দিয়ে বর্তমান দিনে টেনেটুনে মুদি দোকান থেকে এক সপ্তাহের সামগ্রী কেনা যায়। বর্তমান জমানায় ৩০০ টাকায় অনেকে এক কাপ কফি খান বা সিনেমা দেখেন। আর এই পরিমাণ টাকা দিয়েই মাস চালাতে হয় অনেককে!

সরকার সামাজিক সুরক্ষা প্রকল্পের অধীনে দরিদ্র প্রবীণ নাগরিক, স্বামীহারা মহিলা এবং বিশেষ ভাবে সক্ষম নাগরিকদের পেনশন দিয়ে থাকে সরকার। প্রবীণদের জন্য ইন্দিরা গান্ধী ন্যাশনাল ওল্ড এজ পেনশন স্কিম, বিধবাদের জন্য ইন্দিরা গান্ধী ন্যাশনাল উইডো পেনশন স্কিম এবং বিশেষ ভাবে সক্ষমদের জন্য ইন্দিরা গান্ধী ন্যাশনাল ডিজেবিলিটি পেনশন স্কিমে মাসিক ভাতা দেওয়া হয়। ২০১২ সালে এই মাসিক ভাতার পরিমাণ ২০০ টাকা থেকে বেড়ে ৩০০ টাকা করা হয়েছিল। তবে তারপর থেকে বিগত ১০ বছরে এই ভাতার পরিমাণ বাড়েনি।

এই প্রকল্পের অধীনে থাকা পেনশনভোগীদের আবেদন, কিছুটা টাকা বাড়িয়ে দিক সরকার। মূল্যবৃদ্ধির বাজারে এই ৩০০ টাকা দিয়ে ১০ দিনও চালানো যায় না বলে অভিযোগ। এই পরিস্থিতিতে অনেক বৃদ্ধকেও দিন মজুরির কাজ করতে হয় পেট চালাতে। এই আবহে প্রশ্ন উঠেছে, এই প্রকল্পগুলি চালানোর অর্থ তবে কী? অনেকের দাবি, ন্যাশনাল সোশ্যাল অ্যাসিসট্যান্স প্রোগ্রামের অধীনে এই পেনশনগুলির পরিমাণ অন্তত পক্ষে মাসিক ৫০০০ টাকা হওয়া উচিত।

বন্ধ করুন