বাঘটিকে খাঁচায় বন্দি করার চেষ্টা করলে, বাঘটি লাফিয়ে খাঁচার ওপর থাকা বনকর্মীদের ওপর হামলা চালানোর চেষ্টা করে। সেই ঘটনার ভিডিয়োটি বর্তমানে সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে।
বাঘটিকে খাঁচায় বন্দি করার চেষ্টা করলে, বাঘটি লাফিয়ে খাঁচার ওপর থাকা বনকর্মীদের ওপর হামলা চালানোর চেষ্টা করে। সেই ঘটনার ভিডিয়োটি বর্তমানে সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে।

Watch VDO: উত্তর প্রদেশে বাঘের হানা, আহত ৩ গ্রামবাসী

  • ৭৩০ বর্গ কিমি স্থান জুড়ে রয়েছে বিশাল পশ্চিম উত্তর প্রদেশের পিলিভিট টাইগার রিজার্ভ। যাতে বাস করে ৭০টি বাঘ।

করোনার বিরুদ্ধে যুদ্ধে দেশজুড়ে চলা Lockdown এর মধ্যেই, বাঘের হানায় আহত হলেন তিন জন। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার উত্তর প্রদেশের পিলিভিট জেলার গাজরাউলার লালপুর গ্রামে। 

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, পশ্চিম উত্তর প্রদেশের পিলিভিট টাইগার রিজার্ভ থেকে আসা বাঘটি প্রথম আক্রমণ করে বাইকে সওয়ার দুই ব্যক্তিকে। কোনও রকমে তাঁরা পালিয়ে বাঁচেন। 

গ্রামের বাসিন্দারা খবর দিলে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছায় পুলিশ। তবে গ্রামপ্রধান মইলাপ সিংয়ের অভিযোগ, খবর দেওয়ার চার ঘণ্টা পরে ঘটনাস্থলে পৌঁছান বন দফতরের কর্মীরা। বাঘ ধরার জন্য খাঁচা পাতার অনুরোধ উপেক্ষা করে তাঁরা বিদায় নেন বলে গ্রামপ্রধানের দাবি। 

গ্রামবাসীদের অভিযোগ, দীর্ঘ দিন ধরে পিলিভিট টাইগার রিজার্ভে বন দফতরের তরফে কোনও সুরক্ষাবলয় রক্ষা করা হয় না। এর জেরে প্রায় সময়েই লোকালয়ে বাঘ হানা দেয়। ফলে সর্বদা আতঙ্কে থাকেন স্থানীয়রা। 

 

দ্বিতীয় বার বাঘের হানায় তিন গ্রামবাসী আহত হলে ফের ঘটনাস্থলে পৌঁছান বনকর্মীরা। কিন্তু খাঁচায় বন্দি করার চেষ্টা করলে বাঘটি তাঁদের উপর হামলা চালানোর চেষ্টা করে। ঘটনার ভিডিয়োটি বর্তমানে সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। যদিও এই ঘটনায় গাড়ির চালক-সহ বনকর্মীদের কেউ আহত হননি। তবে এর পরে বাঘটি জঙ্গলে পালিয়ে গিয়েছে বলে জানিয়েছে বন দফতর।

৭৩০ বর্গ কিমি জুড়ে থাকা পিলিভিট টাইগার রিজার্ভে বাস করে ৭০টি বাঘ। কাছেই লোকালয়ের উপস্থিতির কারণে মাঝেমধ্যেই বাঘের থাবার নিশানায় পড়েন জঙ্গলে কাঠ সংগ্রহে যাওয়া গ্রামবাসীরা। ২০১৬ সালের নভেম্বর মাস পর্যন্ত ২৭ জন গ্রামবাসী বাঘের হানায় প্রাণ হারিয়েছেন। আবার অনেক সময়ে বাঘ গ্রামে ঢুকে পড়েও বাসিন্দাদের প্রাণহানি ঘটায়। 

 

বন্ধ করুন