বাংলা নিউজ > ময়দান > ৯৯ রানে পাঁচ উইকেট থেকে ২১৭/৫! ব্র্যান্ডনের ‘কিং সাইজ’ ইনিংসে জয়ী ওয়েস্ট ইন্ডিজ
ব্র্যান্ডনের ‘কিং সাইজ’ ইনিংসে জয়ী ওয়েস্ট ইন্ডিজ

৯৯ রানে পাঁচ উইকেট থেকে ২১৭/৫! ব্র্যান্ডনের ‘কিং সাইজ’ ইনিংসে জয়ী ওয়েস্ট ইন্ডিজ

  • এদিন পাঁচ উইকেটে জয় পায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ষষ্ঠ উইকেটে দুই খেলোয়াড়ের মধ্যে ১১৮ রানের জুটি গড়ে ওঠে। এই সময়ে কেসি কার্টি ৪৩ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন। শুধু ম্যাচ নয় সিরিজও জেতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এদিনের ম্যাচের সেরা হয়েছেন ব্র্যান্ডন কিং।

সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে নেদারল্যান্ডসকে ৫ উইকেটে হারিয়ে তিন ম্যাচের সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। প্রথম ম্যাচে নেদারল্যান্ডসকে ৭ উইকেটে হারানোর পরে দ্বিতীয় জয় পেল নিকোলাস পুরানরা। এর ফলে এক ম্যাচ বাকি থাকতেই সিরিজে দখল নেয় ওয়েস্টি ইন্ডিজ। এদিন ভিআরএ ক্রিকেট গ্রাউন্ড, আমস্টেলভিনে অনুষ্ঠিত এই ম্যাচে নেদারল্যান্ডস ওয়েস্ট ইন্ডিজের সামনে২১৫রানের লক্ষ্য রেখেছিল।

প্রথমে ব্যাট করে স্কট এডওয়ার্ডস (৬৮) এবং ম্যাক্স ও'ডাউডরা (৫১)হাফ সেঞ্চুরি করেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে আকিল হোসেন সর্বোচ্চ চার উইকেট শিকার করেন।ওয়েস্ট ইন্ডিজ এই লক্ষ্য অর্জন করতে বড় ভূমিকা পালন করেন ব্র্যান্ডন কিং। ৯টি চার ও তিনটি ছক্কার সাহায্যে ৯০ বলে ৯১ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন কিং।

এই ম্যাচে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় নেদারল্যান্ডস। আপার অর্ডার ব্যাটসম্যানরা এই সিদ্ধান্তকে সঠিক প্রমাণ করে ওপেনিং পার্টনারশিপে বড় ইনিংস খেলেন। স্কট এডওয়ার্ডস ও ম্যাক্স ওড ছাড়া বিক্রমজিৎ সিং ৪৬ রানের ইনিংস খেলেন।কিন্তু এই তিনজন আউট হওয়ার পর নেদারল্যান্ডসের হয়ে কেউই দুই অঙ্ক স্পর্শ করতে পারেনি। লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ওয়েস্ট ইন্ডিজের শুরুটাও ভালো হয়নি।৫০রানের মধ্যে তিন উইকেট হারায় এবং যখন দলের রান ৯৯ তখন ওয়েস্ট ইন্ডিজ তাদের পঞ্চম উইকেট হারিয়েছিল।

নেদারল্যান্ড বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজের ম্যাচের আরও খবর দেখতে ক্লিক করুন-

এই সময় শাই হোপ ১৮, শামরাহ ব্রুকস ৬, এনক্রুমাহ বোনার ১৫, নিকোলাস পুরান ১০ এবং কাইল মেয়ার্স ২২ রান করে আউট হন। তখন মনে হচ্ছিল নেদারল্যান্ডস এই ম্যাচ জিতে সিরিজে ফিরতে পারে। কিন্তু ব্র্যান্ডন কিং এবং কেসি কার্টির ব্যাটিং-এর সামনে নেদারল্যান্ডসের স্বপ্ন ভেঙে যায়। এদিন পাঁচ উইকেটে জয় পায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ষষ্ঠ উইকেটে দুই খেলোয়াড়ের মধ্যে ১১৮ রানের জুটি গড়ে ওঠে। এই সময়ে কেসি কার্টি ৪৩ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন। শুধু ম্যাচ নয় সিরিজও জেতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। এদিনের ম্যাচের সেরা হয়েছেন ব্র্যান্ডন কিং।

বন্ধ করুন