বাংলা নিউজ > ময়দান > Ind vs Eng: ওজন-কিপিং নিয়ে ‘পন্তের উপর কঠোর হয়েছিল দল’, পরে নিজেকে নিংড়ে দিয়েছে : শাস্ত্রী
ঋষভ পন্ত। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)
ঋষভ পন্ত। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)

Ind vs Eng: ওজন-কিপিং নিয়ে ‘পন্তের উপর কঠোর হয়েছিল দল’, পরে নিজেকে নিংড়ে দিয়েছে : শাস্ত্রী

  • শাস্ত্রী জানান, ঋষভের প্রতিভায় পুরোপুরি আস্থা আছে ভারতের।

একটা সময় বেড়ে গিয়েছিল ওজন। সমস্যা তৈরি হয়েছিল ফিটনেস নিয়ে। সেখান থেকে টানা তিন-চার মাস নিজেকে নিংড়ে দিয়েছেন। অস্ট্রেলিয়া এবং ভারতে সেই পরিশ্রমেরই সুফল পেয়েছেন ঋষভ পন্ত। এমনটাই মনে করছেন ভারতীয় দলের হেড কোচ রবি শাস্ত্রী। সঙ্গে জানালেন, ভরসা থাকলেও পন্তের ক্ষেত্রে কঠোর হয়েছিল দল। 

শনিবার ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে সিরিজ জয়ের পর সম্প্রচারকারী চ্যানেলে শাস্ত্রী বলেন, ‘পন্ত সত্যিই দুর্ধর্ষ। আমরা ওর ক্ষেত্রে কঠোর মনোভাব নিয়েছিলাম। ওকে স্পষ্টভাবে জানানো হয়েছিল যে খেলাটাকে আরও একটু সম্মান করতে হবে। কিছুটা ওজন কম করতে হবে। কিপিং নিয়ে খাটতে হবে। আমরা ওর প্রতিভার বিষয়ে জানি এবং (আমাদের কথায়) ও দারুণভাবে সাড়া দিয়েছে। গত কয়েক মাস ধরে হাড়ভাঙা পরিশ্রম করেছে। আর তার ফল দেখাই যাচ্ছে।’

অথচ অস্ট্রেলিয়া সফরের আগে রীতিমতো ফর্ম হারিয়ে ফেলেছিলেন পন্ত। তাঁর ওজন নিয়েও সমালোচনা শুরু হয়েছিল। অ্যাডিলেডে প্রথম টেস্টে সুযোগ পাননি। দ্বিতীয় টেস্টে বড় স্কোর না করলেও প্রথম ইনিংসে ২৯ রানের গুরুত্বপূর্ণ ইনিংস খেলেছিলেন। সিডনিতে চোট নিয়ে অসাধারণ ৯৭ রান করেছিলেন। যা ভারতকে জয়ের স্বপ্ন পর্যন্ত দেখিয়েছিল। পরের ম্যাচে তাঁর অপরাজিত ৮৯ রানের সৌজন্য গাব্বায় ঐতিহাসিক জয় পেয়েছিল ভারত। তারপর দেশের মাটিতে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে কয়েকটি ভালো ইনিংস খেলেছেন। কিন্তু বারবার তিন অঙ্কের গণ্ডির সামনে গিয়ে আটকে যাচ্ছিলেন। শুক্রবার দল যখন প্রবল চাপে, তখন দুর্দান্ত শতরান হাঁকান। যে ইনিংসটা দুর্দান্তভাবে সাজিয়েছিলেন পন্ত। প্রথম ৫০ রান করেছিলেন ৮২ বলে। যা একেবারেই পন্ত-সুলভ নয়। ভারতের রান ইংল্যান্ডের থেকে বেশি হয়ে যাওয়ার পর নিজের স্বাভাবিক ছন্দে ফেরেন। দ্বিতীয় ৫০ রান করেন মাত্র ৩৩ বলে। ওয়াশিংটন সুন্দরের অপরাজিত ৯৬ রানের পাশাপাশি সেই ইনিংস ভারতকে চালকের আসনে বসিয়ে দিয়েছিল। যেখান থেকে ম্যাচ জিতে নিয়েছে ভারত। সেই সঙ্গে ইংল্যান্ড সিরিজেও স্পিন-সহায়ক উইকেটে পন্তের কিপিংও সকলের নজর কেড়েছে।

শাস্ত্রী বলেন, ‘গতকালের ইনিংসটা ভারতে আমার দেখা কোনও ভারতীয় ব্যাটসম্যানের সেরা প্রতি-আক্রমণ ব্যাটিং। ওটা দুটি ভিন্ন ধরনের ইনিংস ছিল। নিজের স্বভাবের বিরুদ্ধে গিয়ে রোহিত শর্মার সঙ্গে জুটি তৈরি করেছিল। সেটা মোটেও সহজ নয়। আর ৫০ হওয়ার পর আক্রমণাত্মক খেলতে শুরু করে। কিপিংও দুর্দান্ত করেছে। ওয়াশিও দুর্ধর্ষ খেলেছে।’

বন্ধ করুন