বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2022 > GT vs SRH: ১৫৩ কিলোমিটারের ইয়র্কারে বোল্ড ঋদ্ধি, ছিটকে গেল গিল-মিলারদের স্টাম্প, বাইশগজে আগুন ঝরালেন উমরান, ভিডিয়ো
একের পর এক ব্যাটসম্যানকে বোল্ড করলেন উমরান মালিক। ছবি- টুইটার।
একের পর এক ব্যাটসম্যানকে বোল্ড করলেন উমরান মালিক। ছবি- টুইটার।

GT vs SRH: ১৫৩ কিলোমিটারের ইয়র্কারে বোল্ড ঋদ্ধি, ছিটকে গেল গিল-মিলারদের স্টাম্প, বাইশগজে আগুন ঝরালেন উমরান, ভিডিয়ো

  • ব্যাটিং পিচে IPL 2022-এর সেরা বোলিং উমরানের। একাই নিলেন ৫টি উইকেট। চারজন ব্যাটসম্যানের স্টাম্প ছিটকে দিলেন সানরাইজার্স হায়দরাবাদের আগুনে পেসার।

আইপিএলে এমন দাপুটে পেস বোলিং শেষ কবে দেখা গিয়েছে, ক্রিকেটপ্রেমীদের পক্ষে মনে করা কঠিন। এমনটা নয় যে, সেনা (SENA) দেশের গতিশীল বাউন্সি পিচে বল করছেন কোনও প্রতিষ্ঠিত আন্তর্জাতিক পেসার। বরং উপমহাদেশের বাইশগজে ভারতের এক উঠতি ঘরোয়া ক্রিকেটার যেভাবে নিজের গতিতে বিধ্বস্ত করলেন প্রতিষ্ঠিত ব্যাটসম্যানদের, তাতে ক্রিকেটপ্রেমীদের আপ্লুত হওয়াই স্বাভাবিক।

টি-২০ ক্রিকেটে দর্শকরা চার-ছক্কা দেখতে মাঠে আসেন। তবে উমরান পরিচিত সেই ছবিটা বদলে দিলেন মুহূর্তে। তাঁর আগুনে বোলিং ওয়াংখেড়ের গ্যালারিকে সম্মোহিত করে রাখে আগাগোড়া।

আক্ষরিক অর্থেই বাইশগজে আগুন ঝরালেন উমরান। লকি ফার্গুসনের মতো মহাতারকাকে যেভাবে পরপর চার-ছক্কায় হেনস্থা হতে হয়, তার পরে উমরানের এমন বোলিংকে কুর্নিশ জানানো ছাড়া উপায় নেই।

বোলারদের হাতে পর্যাপ্ত রসদ তুলে দিতে পেরেছিলেন সানরাইজার্সের ব্যাটসম্যানরা। তবে ঋদ্ধিমান সাহা ও শুভমন গিল যেভাবে গুজরাট ইনিংসের শুরু করেন, তাতে বড় রান তাড়া করে ম্যাচ জেতা অতি সহজ দেখাচ্ছিল। এমন ব্যাটিং সহায়ক পিচে উমরান একাই ৫ উইকেট নিয়ে হায়দরাবাদকে লড়াইয়ে ফেরানোর চেষ্টা করেন। তবে বাকিরা তাঁকে সমর্থন করতে পারেননি এতটুকু।

উমরান মালিকের ৫ উইকেটের ভিডিয়ো দেখতে ক্লিক করুন:- https://www.iplt20.com/video/43852/-destruction-alert-umran-malik-wreaks-havoc-with-dream-spell

ইনিংসের অষ্টম ওভারে প্রথমবার বল করতে আসেন উমরান। সেই ওভারের চতুর্থ বলে (৭.৪ ওভার) তিনি বোল্ড করেন শুভমন গিলকে। এক্ষেত্রে অফ-স্টাম্পের লাইনে ১৪৪ কিটোমিটার প্রতি ঘণ্টার ডেলিভারি অযথা লেগ সাইডে সরে গিয়ে খেলার চেষ্টা করেন গিল। ব্যাটসম্যানের ভুলের সুযোগ নিয়ে উমরান স্টাম্প ছিটকে দিতে ভুল করেননি।

ইনিংসের দশম ওভারে উমরান দ্বিতীয়বার বল করতে আসেন। সেই ওভারের দ্বিতীয় বলে তিনি তুলে নেন হার্দিক পান্ডিয়ার উইকেট। ৯.২ ওভারে ক্যাপ্টেনের পরিকল্পনা মতোই শর্ট পিচড ডেলিভারিতে হার্দিককে পরাস্ত করেন উমরান।

ওভার তিনেক পরে ফের আক্রমণে আসেন উমরান এবং ফের উইকেট এনে দেন দলকে। ১৩.২ ওভারে ঋদ্ধিমান সাহাকে ১৫৩ কিলোমিটারের ইয়র্কারে বোল্ড করেন তিনি।

নিজের শেষ ওভারে উমরান আর ২টি উইকেট তুলে নেন। ১৫.৫ ওভারে ১৪৮ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টার বলে তিনি বোল্ড করেন ডেভিড মিলারকে। ১৫.৬ ওভারে ১৪৬ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টার ডেলিভারিতে উমরান ছিটকে দেন অভিনব মনোহরের স্টাম্প। সব মিলিয়ে ৪ ওভার বল করে ২৫ রানের বিনিময়ে ৫টি উইকেট দখল করেন মালিক। চারজন ব্যাটসম্যানকে তিনি বোল্ড করেন, যার মধ্যে ঋদ্ধিমান সাহার উইকেটটি ছিল নিঃসন্দেহে সেরা।

যদিও উমরানের এমন দুর্দান্ত পারফর্ম্যান্সের পরেও সানরাইজার্স ম্যাচ হেরে বসে। ফলে ট্র্যাজিক হিরো হয়েই থেকে যেতে হয় তাঁকে।

বন্ধ করুন